শ্রীমঙ্গলেও চলছে ভোটার নিবন্ধনঃএবার ১৫ বছর বয়সীরাও নিবন্ধন যোগ্য

0
66
শ্রীমঙ্গলেও চলছে ভোটার নিবন্ধনঃএবার ১৫ বছর বয়সীরাও নিবন্ধন যোগ্য
শ্রীমঙ্গলেও চলছে ভোটার নিবন্ধনঃএবার ১৫ বছর বয়সীরাও নিবন্ধন যোগ্য

মিনহাজ তানভীরঃ  মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গল উপজেলাসহ দেশের ১৪০ উপজেলায় ভোটার তালিকা হালনাগাদ শুরু হয়েছে।সে উপলক্ষ্যে উপজেলার ৫ নং কালাপুর ইউনিয়নে ১২ জুলাই থেকে শুরু হয়েছে ভোটার নিবন্ধন কারজক্রম।কালাপুর ইউপি অফিসে ভোটার নিবন্ধন চলবে আগামী ১৮ জুলাই পর্যন্ত জানালেন তথ্য সংগ্রহকারী টিম লিডার আব্দুল সাদিক মাসুম।

জানা যায়, নির্বাচন কমিশনের (ইসি) ঘোষিত সময়সূচি অনুসারে গত ২০ মে থেকে দেশব্যাপী ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু হয়েছে। তথ্য সংগ্রহ ও সুপারভাইজার কর্তৃক যাচাই কার্যক্রম ২০ মে থেকে পরবর্তী তিন সপ্তাহ পর্যন্ত অথবা শুরুর তারিখের পরবর্তী তিন সপ্তাহ ভোটারদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করা হয়।

ইসি সূত্র জানায়, প্রথম ধাপে ১৪০ উপজেলায় ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রমের তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে। এরপর পর্যায়ক্রমে ছবি তোলা ও ভোটার নিবন্ধনের কার্যক্রম চলছে। অবশিষ্ট উপজেলাসমূহের সিনিয়র জেলা নির্বাচন অফিসার ও জেলা নির্বাচন অফিসার স্থানীয়ভাবে তথ্য সংগ্রহ ও নিবন্ধন কার্যক্রমের সময়সূচি নির্ধারণ করবেন।

তথ্য সংগ্রহকারী টিমের সদস্যরা

এবার আগামী তিন বছরের মধ্যে যাঁরা ভোটার হওয়ার যোগ্য (১৮ বছর) হবেন, তাঁদের তথ্য সংগ্রহ করা হবে। সে হিসাবে ২০০৭ সালের ১ জানুয়ারি বা তার আগে যাদের জন্ম, এই হালনাগাদ কার্যক্রমে তাঁদের তথ্য সংগ্রহ করা হবে। এর মধ্যে যাঁদের জন্ম ১ জানুয়ারি ২০০৫ বা তার আগে তাঁদের ভোটার হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করে চূড়ান্ত ভোটার তালিকা আগামী বছরের ২ মার্চ প্রকাশ করা হবে।

আর যাদের জন্ম ১ জানুয়ারি ২০০৬ বা তার আগে, তাদের অন্তর্ভুক্ত করে চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে ২০২৪ সালের ২ মার্চ এবং যাদের জন্ম ২০০৭ সালের ১ জানুয়ারি বা তার আগে, তাদের অন্তর্ভুক্ত করে চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হবে ২০২৫ সালের ২ মার্চ।

ইসি জানিয়েছে, যাঁদের জন্ম ২০০৫ সালের আগে, কিন্তু বিভিন্ন কারণে ভোটার হিসেবে নাম অন্তর্ভুক্ত করতে পারেননি, তাঁরাও হালনাগাদ কার্যক্রমে ভোটার হতে পারবেন। ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রমে মৃত ভোটারের তথ্যও সংগ্রহ করা হবে। এ সময় ভোটার স্থানান্তরের আবেদনও করা যাবে।

নির্বাচন কমিশন নিয়োজিত তথ্য সংগ্রহকারীরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করেছেন। ভোটার তালিকায় নাম অন্তর্ভুক্তির জন্য ১৭ ডিজিটের অনলাইন জন্মনিবন্ধন সনদ, শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদ (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে), পিতা/মাতার জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি, ইউটিলিটি (পানি, বিদ্যুৎ, গ্যাস) বিলের কপি প্রয়োজন হবে।

তথ্য সংগ্রহের পর নিবন্ধন কেন্দ্রে ভোটারদের নিবন্ধন করা হবে ধাপে ধাপে। উপজেলা পর্যায়ে ইউনিয়ন পরিষদ এবং সিটি করপোরেশন ও পৌর এলাকায় ওয়ার্ড পর্যায়ে নিবন্ধন কেন্দ্র স্থাপন করে ভোটারদের ছবি, আঙুলের ছাপ ও চোখের আইরিশ গ্রহণ করে ভোটার নিবন্ধন করা হবে। এ সময় মূল তথ্যের প্রিন্ট কপি দেওয়া হবে ভোটারদের।

ইসি জানায়, রোহিঙ্গারা যাতে ভোটার তালিকাভুক্ত হতে না পারে, সে জন্য বিশেষ সতর্কতা অবলম্বন করা হবে। চট্টগ্রাম অঞ্চলের ৩২টি বিশেষ এলাকার জন্য বিশেষ কমিটির মাধ্যমে নিবন্ধন ফরম যাচাই-বাছাই করা হবে। এ ছাড়া রোহিঙ্গাদের বায়োমেট্রিক–সংবলিত ডেটাবেইজও ব্যবহার করা হবে।

উল্লেখ্য,২০০৭ সালের ১ জানুয়ারির পুর্বে জন্ম গ্রহণকারীরা নিবন্ধন করতে পারবে।এ ব্যাপারে শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি ফোন রিসিভ করেনি পরে অফিস সহকারী রাজেশ কৈরীর সাথে কথা হলে তিনি জানান ভোটার নিবন্ধন কার্যক্রম উপজেলায় ২ আগস্ট পর্যন্ত চলবে।

তথ্য সংগ্রহকারী টিমের সদস্যরা

সরেজমিনে কালাপুর ইউনিয়নে গিয়ে দেখা যায় ১৫ বছর থেকে বাদ পরাসহ নতুন ভোটার দের নিবন্ধন কার্যক্রম চলছে।বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষকসহ স্বেচ্ছাসেবীরা আগন্তকদের সহযোগিতা করছে।

এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এম এ মতলিব জানান,সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী নিবন্ধন কাজ চলছে,আমি আমার ইউনিয়নের সকলের প্রতি অনুরোধ করবো আপনারা যারা এখনো ভোটার হননি বা ২০০৭ এর ১ জানুয়ারির পূর্বে জন্ম গ্রহণ কারীদের নিবন্ধন তালিকা করার জন্য।নতুবা পরে এই কাজ গুলো করতে সমস্যা হবে।

প্রসঙ্গত, দেশে এখন মোট ভোটার সংখ্যা ১১ কোটি ৩২ লাখ ৮৭ হাজার ১০। এর মধ্যে পুরুষ ৫ কোটি ৭৬ লাখ ৮৯ হাজার ৫২৯ জন, নারী ৫ কোটি ৫৫ লাখ ৯৭ হাজার ২৭ জন এবং হিজড়া ৪৫৪ জন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here