শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশেই অনুষ্ঠিত হবে এশিয়া কাপ

    0
    13

    আমারসিলেট24ডটকম,০৪জানুয়ারীঃ  শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশেই আগামী মাসে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে এশিয়া কাপ ক্রিকেট। আজ কলম্বোয় এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের (এসিসি) সভায় এই সিদ্ধান্ত হয়েছে। একইসাথে এবারের টুর্নামেন্টে প্রথমবারের মত পঞ্চম দল হিসেবে আফগানিস্তান ও খেলার সুযোগ পাচ্ছে বলে সভায় জানানো হয়েছে।
    বাংলাদেশের বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিবেচনায় বিভিন্ন মহলে বাংলাদেশের আসন্ন এই আয়োজন নিয়ে শঙ্কা ও উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়েছিল। কিন্তু কলম্বোর সভা শেষে এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের প্রধান নির্বাহী আশরাফুল হক বলেছেন, “আগামী ২৫ ফেব্রুয়ারি থেকে আগের সূচি অনুযায়ী বাংলাদেশেই এই টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হবে।” তিনি আরো বলেছেন, টুর্নামেন্টের জন্য সব প্রস্তুতিই যথাযথভাবে এগিয়ে যাচ্ছে। আজকের এই সভায় কোন দেশই বাংলাদেশের বর্তমান নিরাপত্তা নিয়ে কোন ধরনের প্রশ্ন তোলেনিবলে জানা যায়।

    উল্লেখ্য, এই সভায় বাংলাদেশের সার্বিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে একটি বিস্তারিত উপস্থাপনা বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পক্ষ থেকে পেশ করা হয়।এসিসির বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে ২৫ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হওয়া এই টুর্নামেন্টে সর্বমোট ১১টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে। টুর্ণামেন্টের ফাইনাল হবে ৮ মার্চ।
    বাংলাদেশের বর্তমান রাজনৈতিক অস্থিরতা বিবেচনায় গত বৃহস্পতিবার পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছিল এশিয়া কাপে আদৌ তাদের দল যাবে কিনা এ ব্যপারে তারা দেশের সরকারের হস্তক্ষেপ কামনা করেছে।তবে আশরাফুল হক জানিয়েছেন আজকের সভায় পাকিস্তানের পক্ষ থেকে নিরাপত্তা নিয়ে কোন প্রশ্ন করা হয়নি। তারা জানিয়েছে এখনো তারা না খেলার কোন সিদ্ধান্ত নেয়নি।

    অপরদিকে, পাকিস্তান বোর্ডের এক সূত্র শনিবার বার্তা সংস্থা এএফপিকে জানিয়েছে এশিয়া কাপের ব্যপারে আরো কিছু বিষয় স্পষ্ট হবার জন্য তারা আগামী ৯ জানুয়ারি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিলের কাছে অনুরোধ জানাবে।
    এবারের আসরে এশিয়ার চারটি টেস্ট খেলুড়ে দেশ ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলংকা এবং বাংলাদেশের সাথে আফগানিস্তানও যোগ দিবে। সাম্প্রতীক সময়ে আফগান্তিান দলটি ক্রিকেটে বেশ দ্রুত উন্নতি করেছে। নিজেদের সাফল্য দিয়েই তারা প্রথমবারের মত ২০১৫ বিশ্বকাপ ক্রিকেটে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে। এছাড়া তৃতীয়বারের মত তারা টোয়েন্টি২০ বিশ্বকাপের খেলবে। আশরাফুল বলেছেন, এশিয়া কাপে অংশগ্রহণ আফগানিস্তান ক্রিকেটের জন্য অতি বড় একটি পদক্ষেপ।
    এশিয়া কাপ ছাড়াও বাংলাদেশে আগামী ১৬ মার্চ থেকে ৬ এপ্রিল টোয়েন্টি২০ বিশ্বকাপের আসর অনুষ্ঠিত হবার কথা রয়েছে। রাজধানী ঢাকা ছাড়াও চট্টগ্রাম ও সিলেটে এই আসর অনুষ্ঠিত হবে। কিন্তু আইসিসি’র এক মুখপাত্র গতমাসে জানিয়েছিলেন বাংলাদেশের পুরো পরিস্থিতি আইসিসির পক্ষ থেকে খুব নিবিড়বাবে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে। বিশেষ করে গত মাসে চট্টগ্রামে ওয়েস্ট ইন্ডিজ অনুর্ধ্ব-১৯ দলের হোটেলের সামনে একটি অনাকাঙ্খিত ঘটনায় ক্যারিবীয়রা তাদের সফর বাতিল করে দেশে ফিরে গেলে বাংলাদেশের নিরাপত্তা প্রশ্নের সম্মুখীন হয়।
    এদিকে আগামী ২৭ জানুয়ারি থেকে শুরু হওয়া মাসব্যাপী বাংলাদেশ সফরে আসার ব্যাপারে শ্রীলংকা সবুজ সঙ্কেত দিয়েছে। এই সিরিজে লংকানরা দুটি টেস্ট, দুটি টি২০ এবং তিনটি ওয়ানডে ম্যাচ খেলবে। বাংলাদেশের খেলার ব্যপারে পর্যাপ্ত নিরপত্তার নিশ্চয়তা পাবার পরেই লংকানরা এই সিরিজের ব্যাপারে রাজি হয়েছে বলে ক্রিকেট শ্রীংলকার সেক্রেটারি নিশান্তা রানাতুঙ্গা জানিয়েছেন  “বাসসের” খবরে জানা যায়

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here