মা সমাবেশ,উঠান বৈঠক ও হোম ভিজিটের গুরুত্ব

    0
    642
    যে কোন দেশের শিক্ষা ব্যবস্থার মূল ভিত্তি  হচ্ছে প্রাথমিক শিক্ষা। বর্তমান শিক্ষা বান্ধব সরকার বাংলাদেশের শিক্ষা ব্যবস্থায় এনেছে আমূল পরিবর্তন।যুগের সাথে তাল মিলিয়ে ও পাশ্ববর্তী  দেশগুলোর সাথে  সংগতি রেখেশিক্ষা পদ্ধতিতেও পরিবর্তন ঘটানো হচ্ছে। সবার জন্য মান সম্মত প্রাথমিক শিক্ষা নিশ্চিত করণের লক্ষ্যে দেশের প্রতিটি প্রাথমিক বিদ্যালয়কে শিক্ষার্থীদেও নকিট আকর্ষণীয় ও আনন্দদায়ক কওে গড়ে তোলার  জন্য বিভিন্ন  প্রকল্প গ্রহণ করেছে। শিক্ষা পদ্ধতির পরিবর্তনের সাথে সাথে পরিবর্তন আনা হচ্ছে  বিদ্যালয়ের ভৌত অবকাঠামোগত অবস্থায়। সনাতন শিক্ষা পদ্ধতির  পরিবর্তে শিক্ষার্থীরা পাচ্ছে আধুনিকতার ছোঁয়া।
    শিক্ষার্থীদের বিদ্যালয়মুখী করার জন্য সরকার প্রতিটি বিদ্যালয়ে শতভাগ উপবৃত্তি চালু করেছেন। এতে দরিদ্র শিক্ষার্থীরা  উপকৃত হচ্ছে। পর্যায়ক্রমে দক্ষ ও যোগ্য শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হচ্ছে। সরকারের নানামুখী সুযোগ সুবিধা প্রদানের পরও বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের শতভাগ উপস্থিতি নিশ্চিত হচ্ছে না। ফলে সরকার তার কাংখিত লক্ষ্যে পৌঁছাতে পারছে না।বিদ্যালয়ে গুণগত মান ও সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপ বাস্তবায়নে    বিদ্যালয়ের শিক্ষকগণ অগ্রণী ভূমিকা পালন করেন। জরিপে দেখা যায় ,যে সমস্ত বিদ্যালয়ে মা সমাবেশ ,উঠান বৈঠক ও হোম ভিজিট নিয়মিত সে সব বিদ্যালয়ের শিকার্থীদের উপস্থিতির হার বেশি ও ঝরে পড়ার হারও কম। তা ছাডা এসমaস্ত কর্মকা-ের মাধ্যমে শিক্ষক ,অভিভাবক ও শিক্ষার্থীর মধ্যে সু-সম্পর্ক স্থাপিত হয়। শিশুরা যেহেতু বেশির ভাগ সময়ই ম-দের সাথে  থাকে সেহেতু মা -রাই শিশুর ভালো মন্দ বুঝেন। তাই শিশুর সার্বিক  অবস্থা জানার জন্য প্রতিটি বিদ্যালয়কে নিযমিত উঠান বৈঠক,মা সমাবেশের  আয়োজন করা উচিত। এর মাধ্যমে  অভিভাবকগণও বিভিন্ন বিষয়ে তাদের মতামত ব্যক্ত করতে পারেন। তাই হোম ভিজিট,উঠান বৈঠক ও মা সমাবেশের আয়োজনের  মাধ্যমে  একটি বিদ্যালয় মানসম্মত প্রাথমিক শিক্ষা অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ  ভূমিকা রাখতে পারে।প্রণবেশ কুমার চৌধুরী, সহকারি শিক্ষক।