ব্যাগে সিগারেট রাখার দ্বায়ে স্ত্রীকে তালাক

    1
    16

    আমারসিলেট24ডটকম,১ডিসেম্বরঃ সদ্য বিবাহিত স্ত্রী’র ব্যাগে সিগারেট পাওয়ায় ক্ষুব্ধ সৌদি এক যুবক তালাক দিলো তার স্ত্রীকে।প্রায় তিন মাস আগে তাদের বিয়ে হয়েছিলো ।স্ত্রীর পরিবার সূত্রে বলা হয়, মহিলার স্বামী হঠাৎ করে স্ত্রীর মার্কেট করতে যাওয়া ব্যাগে  সিগারেট খুঁজে পান। এতে প্রচন্ড রকম  ক্ষুব্ধ হোন ঐ যুবক। মহিলা ধূমপান করেন না। সিগারেট তার নয়।অনেক করে বললেও ক্ষুব্ধ স্বামীর সিদ্ধান্ত বদল করতে পারেনি।তালাকের একমাত্র কারণ সিগারেট হওয়ায় সৌদি সমাজে সমালোচিত হোন ওই যুবক। পুরো সত্য না জেনে এমন সিদ্ধান্ত নেয়া উচিত হয়নি বলে মনে করেন সৌদি সমাজ।

    উল্লেখ্য, সৌদি আরবে ছয় লক্ষের মত মহিলা ধূমপান করেনবলে জানা যায়। ধূমপায়ীদের মধ্যে বেশির ভাগ  তরুণী । যাদের বয়স ২০ এর কম। স্কুল পড়ুয়াদের মধ্যে ধূমপানের ঝোঁক বেশি দেখা যায়। এ ছাড়া রাস্তায় গাড়িতে বড় বড় সুপারমলের পাশেও গোপনে তরুণীদের সিগারেট ফুঁকতে দেখা যায় বলে একটি প্রবাসী সূত্রে জানা গেছে।

    তবে সৌদি আরবে ধূমপান নিয়ে সেখানকার বিচার বিভাগের রুল আছে। ২০১২ তে সে রুলে সৌদি বিচারক বলেন, যদি কোনো মহিলা স্বামীর ধূমপানে কষ্ট পান তবে তিনি স্বামীর বিরুদ্ধে আদালতে তালাক দাবি করতে  পারে। একই সুবিধা স্ত্রীর বিরুদ্ধে স্বামীও পাবে।আরেকটি রুলে বলা হয় যদি কোনো পিতা বা মাতা ধূমপায়ী হয় তবে সন্তানের হেফাজত অধূমপায়ী বাবা বা মায়ের কাছে চলে যাবে।জানা যায়,সম্প্রতি সিগারেটকে মদের মতই একটি ক্ষতিকর নেশা হিসেবে  বিবেচনা করছে সৌদি আদালত।সুত্রঃ ইন্টারনেট।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here