বিশ্বকাপে প্রথম মুখোমুখি ব্রাজিল-ক্রোয়েশিয়া

    2
    53

    আমারসিলেট24ডটকম,১২জুনঃ আজ বৃহস্পতিবার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানির পরপরই ব্রাজিল ও ক্রোয়েশিয়ার মধ্যকারম্যাচ দিয়ে পর্দা ওঠছে ফিফা বিশ্বকাপের ২০ তম আসরের। আর উদ্বোধনীম্যাচটিতেই নিজেদের দাপট দেখানোর মাধ্যমে বিশ্ববাসীর সামনে স্বাগতিকব্রাজিল প্রমান করতে চায়, কাগজে কলমে নয়, বাস্তবেই তারা শিরোপা জয়েরদাবীদার। এজন্য মুখিয়ে রয়েছে গোটা দলটি। যার মাধ্যমে স্বাগতিক হিসেবেশ্বাসরুদ্ধকর চাপ থেকেও মুক্তি পাবে তারা। এই দলটি নিয়েই গত বছর অনুষ্ঠিতকনফেডারেশন কাপের ফাইনালে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন স্পেনকে ৩-০ গোলে হারিয়ে দারুনএক চমক দেখিয়েছিলেন কোচ লুইস ফেলিপ স্কলারি। শক্তিশালী এবং ধারাবাহিকতারমধ্যে থাকা দলটির মুল কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছেন বার্সেলোনা সুপার স্টারনেইমার।
    কোন রকম সমস্যা ছাড়াই ৫ বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা এবার গ্রুপপর্বের বৈতরণী পার হবে বলে ধারনা করা হলেও বার্সেলোনা ডিফেন্ডার দানি আলভেজমনে করেন- স্নায়ুচাপ থেকে মুক্তি পেতে তারা উদ্বোধনী ম্যাচটির জন্য দারুনআগ্রহ ভরে অপেক্ষা করছে। তিনি বলেন, আমি সব সময় বলে থাকি, যদি উদ্বেগ বোধনা থাকে তাহলে পেশাদারিত্ব থাকবেনা। তাই উদ্বোধনী ম্যাচটি হবে গুরুত্বপুর্নও কঠিন।
    আলভেজ বলেন, বিশ্বকাপের মত বড় আসরে সবার জন্যই উদ্বোধনী ম্যাচহচ্ছে সবচেয়ে গুরুত্বপুর্ন ম্যাচ। আমরা বৃহস্পতিবারই জানতে পারব সবকিছু ঠিকআছে কিনা। এ মুহুর্তে আমাদের মধ্যে দারুন আত্মবিশ্বাস রয়েছে এবং আসলমুহুর্তটির জন্য আগ্রহ ভরে অপেক্ষা করছি। আমরা বিশ্বকাপ আসরকে উপভোগ করতেচাই। সেই সাথে নিজেদের একটি ভাল ভাবমুর্তি গড়ে তুলতে চাই।
    নব নির্মিতকোরিন্থিয়ান্স এরিনায় অনুষ্ঠিতব্য উদ্বোধনী ম্যাচে তারকা ফুটবলারে ভরপুরটুর্ণামেন্ট ফেভারিট ব্রাজিলীয় একাদশে অস্কার ও তার চেলসি সতির্থ উইলিয়ানএকত্রে মাঠে নামতে পারবে কিনা সেটিই এখন দেখার বিষয়। তবে ২০০২ সালেব্রাজিলকে শিরোপা পাইয়ে দেয়া স্কলারি হয়তো ১৮তম র‌্যাংকের অধিকারীক্রেয়েশিয়ার বিপক্ষে পরীক্ষিত ম্যাচ জয়ী ফর্মৃুলাটির প্রতিই স্থির থাকবেন।যদিও গত সপ্তাহে সার্বিয়ার বিপক্ষে ওই প্রদর্শনী ম্যাচে মাত্র ১-০ গোলেজয়লাভ করেছিল বিশ্বকাপ ফেভারিটরা। তাও আবার বদলী খেলোয়াড় ফ্রেডের গোলে ভরকরে।
    গত মঙ্গলবার অনুশীলন শেষে অতিরিক্ত স্ট্রাইকারের তালিকায় থাকা জোবলেছিলেন, যে ক্যাম্পে বর্তমানে নিরবতা এবং উদ্বোধনী ম্যাচে ভুমিকা রাখারজন্য সবার মধ্যে টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে। তিনি বলেন, এ মুহুর্তে সবারমধ্যে নিরবতা বিরাজ করছে। সবাই অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছে, কখন সাওপাওলোতেযাবে এবং বল দখলের লড়াইয়ে নামবে। যেখানে থাকবে উত্তেজনা ও উদ্বেগ। তবেআমাদের দেশে বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচটি অন্যদের কাছে ভিন্ন চিত্রের।
    স্কোয়াডেরআরেক সদস্য বার্নার্ড বলেন, নিজেদের মাটিতে প্রথমবারের মত শিরোপা জয়েরলক্ষ্য নিয়ে বিশ্বকাপের মিশনে নামতে যাওয়া ব্রাজিলের জন্য টুর্ণামেন্টেরউদ্বোধনী ম্যাচটি হবে খুবই গুরুত্বপুর্ন। স্বাগতিক ওই ওয়েঙ্গার বলেন, এখানেকোন ম্যাচই সহজ হবেনা। আর সার্বিয়ার বিপক্ষের ম্যাচটি ছিল খুবই জটিল। তারামোটামুটি ভারসাম্যপুর্ন একটি দল। আমার মনে হয় ক্রেয়েশিয়ার বিপক্ষেরম্যাচটিও একই রকম হবে। এখন গুরুত্বপুর্ন বিষয় হচ্ছে উদ্বোধনী ম্যাচের প্রতিমনোযোগ দেয়া। পুর্ন তিন পয়েন্ট নিয়েই আমাদের শুরু করতে হবে।স্বাগতিকরা যেমন শুরুতেই ঝড় তুলতে প্রস্তুত তেমনি ২০০২বিশ্বকাপের সেমিফাইনালিস্ট ক্রোয়েশিয়াও প্রস্তুত রয়েছে ব্রাজিলকে থামাতে।এমনই প্রচ্ছন্ন হুমকি দিয়ে রেখেছেন দলের কোচ নিকো কোভাক।

    ক্রোয়েশিয়ান কোচ কোভাক বলেন, “নেইমার ও ব্রাজিলকে কীভাবে থামাতে হয়, সেটাআমরা জানি। তবে ব্রাজিল মানেই শুধু নেইমার না। তাঁদের দলে আরো অনেক ভালোখেলোয়ার রয়েছে। কিন্তু ক্রোয়েশিয়ারও অনেক ভালো খেলোয়াড় আছে। দলের সবাইজানে ক্রোয়েশিয়ার জার্সি গায়ে খেলতে পারাটা কী দারুণ ব্যাপার। মাঠে আমরাসর্বস্ব দিয়েই খেলব।”

    ক্রোয়েশিয়ার অধিনায়ক দারিও সরনাও কোচের সঙ্গে গলা মিলিয়ে বলেন, “আমিএটা বলতে পারি না যে আমরা গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হব বা ব্রাজিলকে হারাব। কিন্তুমাঠে আমরা নিজেদের সর্বশক্তি দিয়েই লড়াই। এমন কিছু করবো যা নিয়েক্রোয়েশিয়ানরা নিশ্চয়ই গর্ববোধ করবে।”

    “ব্রাজিলের ফার্নান্দিনহো ও উইলিয়ান আমার খুব ভালো বন্ধু। আমরা জানি বিশ্বকাপে ব্রাজিল অন্যতম ফেভারিট হয়ে নামছে তবে আমরা তাদেরকে  সহজেই ছেড়ে দিবোনা।”

    এদিকে বায়ার্ন মিউনিখের স্ট্রাইকার ম্যারিও মানজুকিচকে ছাড়াই উদ্বোধনী ম্যাচেমাঠে নামতে হবে ক্রেয়েশিয়াকে। কারণ- গত নভেম্বরে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষেঅনুষ্ঠিত ম্যাচে তিনি লাল কার্ড দেখে মাঠ থেকে বিতাড়িত হয়েছিলেন। তবে রিয়ালমাদ্রিদের লুকা মড্রিচ দলটির সেরা একাদশে থাকবেন। যা দলটিকে মানষিক সাহসযোগাবে। তার মতে মধ্যমাঠের লড়াই হবে ম্যাচের মুল আকর্ষন। তবে নিজেদেরমাটিতে ব্রাজিলের মত দেশের বিপক্ষে লড়াই করাটা বেশ কঠিন হবে। লুকা বলেন, সচরাচর প্রতিটি ম্যাচেরই পরিণতি নির্ধারিত হয় মধ্যমাঠ থেকে। আশা করছি আমরামানসম্পন্ন খেলা উপহার দিয়ে ব্রাজিলকে হারাতে পারব। তবে অবশ্যই সেটি বেশকঠিন হবে।
    রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে চ্যাম্পিয়নশীপের শিরোপা জয়ের মাধ্যমেদারুন আত্মবিশ্বাসী মড্রিচ নেইমারকে খুবই বিপজ্জনক এবং ব্রাজিলের তিনিইমুখ্য খেলোয়াড় উলে¬খ করে বলেন, চলতি মৌসুমে বার্সেলোনার হয়ে নেইমার যদিওখুব একটা ভাল করতে পারেননি। তবে তিনি যখন ব্রাজিলের হয়ে খেলেন তখন তারচেহারাই পাল্টে যায়। আমার বিশ্বাস তাকে থামানোর কোন উপায় আমরা খুঁজে পাব।প্রসঙ্গত কোরিন্থিয়ান্স এরিনার ৬১ হাজার ৬০০ দর্শক ধারণ ক্ষমতা সম্পন্নস্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে উদ্বোধনী ম্যাচটি। দূর্ঘটনাজনিত কারণে যেটিপ্রস্তুত করতে বিলম্বিত হয়েছে। ওই দুর্ঘটনায় ৩ জন শ্রমিকও মারা গেছে।সুত্রঃইন্টারনেট।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here