কমলগঞ্জে ১০৩তম পৌষ সংক্রান্তি ও গুণীজন সংবর্ধনা

    0
    29

    আমারসিলেট24ডটকম,১৫জানুয়ারীঃ শাব্বির এলাহী মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার বালিগাঁও মণিপুরী গ্রামে ঐতিহ্যবাহী পৌষ সংক্রান্তি উৎসব পালনের ১০৩তম বার্ষিকী এবার বর্ণাঢ্য আয়োজনে পালিত হয়েছে । মঙ্গলবার উত্তর বালিগাঁও যুব ঐক্য পরিষদ এই উৎসবের আয়োজন করে। এ উপলক্ষে খড়ের তৈরি গম্বুজ আকৃতির মেরামেরি (সংক্রান্তি) পুড়ানো, নৌকা বিলাস পালা, মণিপুরী সমাজের গুণীজন সংবর্ধনা, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। পাশাপাশি পৌষ সংক্রান্তি উপলক্ষে মণিপুরী বাড়ি বাড়ি চলে রকমারি পিঠা, পায়েসসহ নানা ধরণের খাদ্য পরিবেশন।

    সন্ধ্যায় উত্তর বালিগাঁও সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা ও আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উত্তর বালিগাঁও যুব ঐক্যের সভাপতি সুব্রত সিংহ। সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক সদানন্দ সিংহের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম মিঞা। বিশেষ অতিথি ছিলেন, কমলগঞ্জ গণ মহাবিদ্যালয়ের সাবেক ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ অধ্যাপক রফিকুর রহমান, কমলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নীহার রঞ্জন নাথ, রাজনীতিক আব্দুল হান্নান ও সাপ্তাহিক কমলগঞ্জ সংবাদ সম্পাদক সানোয়ার হোসেন। স্বাগত বক্তব্য রাখেন উত্তর বালিগাঁও যুব ঐক্যের উপদেষ্টা স্বরুপানন্দ সিংহ, ডা. উচিত কুমার সিংহ, পরিমল সিংহ নটো, হিরণ কুমার সিংহ, রামানন্দ সিংহ ও আদিবাসী যুবনেতা ভীমপল সিংহ ভোলা। মঞ্চে অতিথিদের ফুল দিয়ে বরণ ও তাদের জীবনী পাঠ করেন করেন, সংগঠনের সদস্য দেবানন্দ সিংহ, শিবানন্দ সিংহ, মৃণাল সিংহ, বিপুল সিংহ, শ্যামল সিংহ, শংকর সিংহ, সুইটি সিনহা, মহুয়া সিনহা ও শাওন সিনহা।

    অনুষ্ঠানে যেসব গুণীজনকে সংবর্ধনা দেয়া হয় তারা হলেন- আদিবাসী নেতা ও বীর মুক্তিযোদ্ধা আনন্দ মোহন সিংহ, বিশিষ্ঠ সংগঠক, আদিবাসী নেতা পিডিশন প্রধান সুছিয়াং, সাংবাদিক, সংগঠক সংগ্রাম সিংহ, বিশিষ্ঠ নাট্যকার ও কবি সুভাশিস সমীর, বাংলাদেশী আইডল তারকা মৃন্ময় সিংহ মন্টি।

    আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, যে সমাজ গুণীজনদের সম্মান দিতে জানেনা সেই সমাজ অন্ধকারে ডুবে থাকে। সমাজসেবী, গুণীজনদের সম্মান দিলে সে সমাজের আরোও সমাজ হিতৈষী গুণীজনের সৃষ্টি হয়। এই সম্মান কোন করুনা বা দয়া নয় মানুষের কর্মের স্বীকৃতি। যারা কর্মের স্বীকৃতিতে কার্পন্য করে তাদের দ্বারা কখনোই সমাজ সেবায় মানুষকে উদ্বুদ্ধ করা সম্ভব নয়। সংবর্ধিত অতিথিরা বলেন, অসংখ্য গ্রামের ভিড়ে বালিগাঁও গ্রামের ইতিহাস ভিন্ন। বিশ্বকবির একান্ত সহচর নৃত্যগুরু নীলেশ্বর মুখার্জ্জীর জন্ম এই গ্রামে। কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নেতৃত্বে যিনি বিশ্বজাতির কাছে মণিপুরী নৃত্যকে ছড়িয়ে দিয়েছেন। বাংলাদেশ সরকার মণিপুরীদের জন্য ললিতকলা একাডেমী প্রতিষ্ঠা করলে এই একাডেমীর পরিচালকের দায়িত্ব নিয়েছিলেন বালিগাঁও গ্রামের রামকান্ত সিংহ। এতেই শেষ নয়, অতি সম্প্রতি সর্বপ্রথম বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশী আইডল প্রতিযোগিতার চুড়ান্ত রাউন্ডের অন্যতম শীর্ষস্থানে রয়েছেন এই গ্রামেরই সন্তান, উদীয়মান সঙ্গীত তারকা মৃন্ময় সিংহ মন্টি। মণিপুরী গ্রামগুলোর মধ্যে একমাত্র এই গ্রামেই পৌষ সংক্রান্তি উৎসবের মাধ্যমে শতাধিক বছর ধরে পালিত হয়ে আসছে এটাও ইতিহাসের অংশ।

    মঙ্গলবার উৎসবের সূচনা হয় সকাল ৭টায় স্নান শেষে পবিত্রতার সাথে মেরামেরি পুড়ানোর মধ্যদিয়ে। স্থানীয় প্রথা অনুযায়ী দুপুরে অনুষ্ঠিত হয় নৌকা বিলাস পালা। ওস্তাদ কৃষ্ণধন সিংহ, রসমী সিনহা ও স্বর্ণ কুমারী সিনহার পরিচালনায় এবং সুত্রধর সাধনা সিনহা সীতা ও শিপলু সিংহের পরিবেশনায় এই পালা অনুষ্ঠিত হয়। এতে কৃষ্ণের ভুমিকায় শতাব্দী সিনহা, রাধার ভুমিকায় মোহনা সিনহা, বলরামের ভুমিকায় ঋতু সিংহ, সুবলের ভুমিকায় সোমা পাল, জটিলার ভুমিকায় স্বর্ণ কুমারী সিনহা, কুটিলার ভুমিকায় মণি পাল, মাঝির ভুমিকায় সুমা পাল, যোগমায়ার ভুমিকায় রুমা পাল এবং সখীর ভুমিকায় বর্ষা সিনহা, অনন্যা সিনহা, দীয়া সিনহা, দীপিকা সিনহা, ঈশিতা দত্ত ও নীতি সিনহা অভিনয় করেন।

    সংবর্ধনা ও আলোচনা শেষে রাতে বাংলাদেশী আইউলের তারকা মৃন্ময় সিংহ মন্টি ছাড়াও সাধনা সিনহা সীতা ও শিপলু সিংহ সংগীত পরিবেশন করেন। নৃত্য পরিবেশন করেন আর্থিনা সিনহা অর্ণা ও মণিরাজ সিংহ।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here