Tuesday 27th of October 2020 06:30:50 PM

আমার সিলেট টুয়েন্টি ফোর ডটকম,১৩এপ্রিল,নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পাহাড়ি ঢল ও ভারি বর্ষণে হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার ২০ হাজার হেক্টর বোরো ফসল ডুবে গেছে। বানের পানি ঠেকাতে এখনও বিভিন্ন হাওরে চলছে স্বেচ্ছাশ্রমে ফসলরক্ষা বাঁধ নির্মাণের যুদ্ধ। বুধবার (১২ এপ্রিল) কাগাপাশা ইউনিয়নের বাগহাতার সিদ্দির হাওরে ইউপি চেয়ারম্যান এরশাদ আলীর নেতৃত্বে কৃষকরা স্বেচ্ছাশ্রমে বাঁধ নির্মাণ কাজ করেছেন। বড়ইউরি মরাবাট হাওরের পানি সরাতে অন্তত ৫০টি সেচ মেশিন স্থাপন করেছে গ্রামবাসী।

এদিকে ফসলের ক্ষতি সইতে না পেরে মোছাম্মদ তারাবানু (৪৫) নামের এক কৃষানীর মৃত্যু হয়েছে। বুধবার বিকাল ৫টায় কুমড়ি হাওরে হার্টএটাক করে তিনি মারা যান।
তারাবানু পৈলারকান্দি ইউনিয়নের কুমড়ি নজরপুর গ্রামের সফর আলীর স্ত্রী।এপৈলারকন্দি ইউনিয়ন কমিউনিটি পুলিশিং সভাপতি অ্যাডভোকেট আবদুল হামিদ বলেন, অসময়ের বন্যায় ফসলের ক্ষতিতে ইউনিয়নের কৃষক পরিবারগুলোতে আহাজারি ও কান্নার বিলাপ চলছে। তাদের শান্তনা দেয়ার মতো কোনো ভাষা নেই।
ইউপি সদস্য সহিদ মিয়া বলেন, প্রান্তিক কৃষক তারাবানু’র স্বামী বাকপ্রতিবন্ধী। ছোট ১ ছেলে ও ২ মেয়ে। বড় মেয়েটিও বাকপ্রতিবন্ধী। তারাবানু দারদেনা করে ১০ বিঘা জমি আবাদ করেছিলেন। বিকালে হাওরে গিয়ে দেখেন তার সম্পূর্ণ জমি বানের পানিতে তলিয়ে গেছে। তিনি এ ক্ষতি সইতে না পেরে হাওরেই হার্টএটাকে মারা যান। দরিদ্র এ পরিবারটির জন্য খুব কষ্ট হচ্ছে।

  

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc