Monday 30th of November 2020 10:11:31 AM

আমার সিলেট ডেস্কঃ মহামারী করোনা আর বন্যার কারণে আজ ঈদুল আদহা পালিত হয়েছে এক ভিন্ন পরিস্থিতিতে। দেশের কোটি মানুষ করোনা ভীতিতে । আক্রান্ত হাজারো মানুষ। অনেকে হারিয়েছেন তাদের প্রিয়জন। অনেকের স্বজন বাড়িতে বা হাসপাতালে কাতরাচ্ছেন মৃত্যু যন্ত্রণায়। অর্থনৈতিক বিপর্যয়ে পরাস্ত লক্ষ লক্ষ পরিবার এবার পশু কুরবানি করতে পারছেন না যথেষ্ট সম্পদশালিরা। এসব কারণে ধর্মীয় বাধ্যবাধকতার বাইরে সত্যিকার অর্থে আনন্দটা চুপসে গেছে তবুও যেন এক চিলতে রোধের ঝিলিক দিয়ে উঠেছে এবারের ঈদ।

এ অবস্থার মাঝে করোনাকালীন স্বাস্থ্যবিধি মেনে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে কম সংখ্যক মুসল্লির উপস্থিতিতে দেশের মসজিদগুলিতে অনুষ্ঠিত হয়েছে ঈদের জামায়াত। ধর্ম মন্ত্রণালয়ের পরামর্শ মেনে এবারেও জাতীয় ঈদগাহসহ দেশের প্রধান প্রধান ঈদগাহে এবং উন্মুক্ত স্থানে বড় জামাত আয়োজন করা থেকে বিরত থেকেছেন স্থানীয় কর্তৃপক্ষ। বন্যাকবলিত এলাকায় মসজিদের সামনে নৌকায় বসেই ঈদের দু’রাকাত নামাজ আদায় করেছে বলে খবর পাওয়া গেছে, যদিও এভাবে ঈদের নামাজ আদায়ের কতটা জরুরী তা মাসালার বিষয়।

এছাড়া, রাজধানী ও সিলেটসহ সারা দেশেই সকাল থেকে থেমে থেমে বৃষ্টির প্রকোপে আর জলমগ্ন পরিস্থিতির মাঝে প্রত্যেক মসজিতে বা মাদ্রাসা চত্বরে আয়োজিত জামায়াত শেষে মুনাজাতে করোনাভাইরাস মহামারিসহ সব ধরনের দুর্যোগ দুর্বিপাক থেকে মানবজাতিকে হেফাজতের জন্য মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের দরবারে ফরিয়াদ জানানো হয়েছে। একই সাথে দেশ জাতি ও জনগণের কল্যাণ ও বিশেষ করে মুসলিম উম্মাহর ঐক্য ও সমৃদ্ধি কামনায় দোয়া করা হয়েছে। নামাজ শেষে মাস্ক পরিহিত মুসল্লিরা পরস্পরে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করলেও করোনা সতর্কতার কারণে কোলাকুলি থেকে বিরত থাকেন অনেকে।

সারা দেশে ঈদের নামাজ শেষে সামর্থ্য অনুযায়ী পশু কোরবানি এবং অংশবিশেষ গোশত গরীব ও দুস্থদের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে।

ফরিদপুরের পদ্মা নদীর পাড়ে বন্যার্তদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ করেছে সেনাবাহিনী। শনিবার নবম পদাতিক ডিভিশনের ব্যবস্থাপনায় ৮১ পদাতিক ব্রিগেডের অধীনস্থ ২৮ বীর ফরিদপুর অঞ্চলে ঈদ উপহার বিতরণ করেছে।

সেনাপ্রধানের পক্ষ হতে ফরিদপুরে বন্যাদুর্গত প্রায় ৫০০ জনের মধ্যে ঈদ উপহার হিসেবে রান্না করা খাবার বিতরণ করা হয়েছে। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর একটি টিম ফরিদপুরে এই ঈদ উপহার বিতরণ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করেছে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকেই বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর নবম পদাতিক ডিভিশনের ৮১ পদাতিক ব্রিগেডের অধীনস্থ ২৮ বীর ফরিদপুর জেলায় জনসাধারণের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য কাজ করে যাচ্ছে।

সাম্প্রতিক সময়ে এই অঞ্চলে বন্যার প্রকোপ দেখা দেয়ায় বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে বন্যাদুর্গত লোকজনকে সহায়তার জন্য সেনাপ্রধানের পক্ষ হতে বন্যার্তদের মাঝে খাবার সামগ্রী সহায়তা প্রদান করা হচ্ছে।

  

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc