Tuesday 20th of October 2020 12:01:31 PM

“স্থানীয় সরকারী কলেজে ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের মারামারির অভিযোগের সঠিক কোন তথ্য না পেয়ে এবং দলীয় আচরনবিধি এবং শৃঙ্খলা ভঙ্গের কারনে, জেলা নেতৃবৃন্দের  সিদ্ধান্ত  হয় দু’টি  কমিটির কার্যক্রম স্থগিতের”

আমার সিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,০৬জুলাই,শিমুল তরফদার  ও জহিরুল ইসলামঃ    দলীয় আচরনবিধি এবং শৃঙ্খলা ভঙ্গের কারনে, শ্রীমঙ্গল উপজেলা ও শ্রীমঙ্গল সরকারী কলেজ ছাত্রলীগের কমিটি সাংগঠনিকভাবে স্থগিত ঘোষনা করা হয়েছে। বুধবার প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মৌলভীবাজার জেলা ছাত্রলীগ এর সভাপতি মো: আসাদুজ্জামান রনি এবং সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান রনি।

লিখিত প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে তারা জানান, শ্রীমঙ্গল উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো: মসুদ আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক রাজু দেব রিটন ও কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি সাইদুর রহমান সুজাত ও সাধারণ সম্পাদক উজ্জ্বল কান্তি দাস কে, কেন সংগঠন থেকে স্থায়ী ভাবে বহিস্কার করার জন্য কেন্দ্রীয় কমিটিকে, কেন সুপারিশ করা হবে না তা আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে উপজেলা ও কলেজ ছাত্রলীগকে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে মৌলভীবাজার সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান রনি সাথে মুঠোফোনে কথা বললে তিনি আমার সিলেট প্রতিনিধিকে জানান, “ছাত্রলীগের মারামারির বিষয়টির সঠিক কোন তথ্য পাচ্ছি না বিধায় আমরা স্থগিত করেছি, যাতে সত্য ঘটনা খুঁজে পাওয়া যায়।”

উল্লেখ্য জানা গেছে,মঙ্গলবার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে শ্রীমঙ্গল সরকারি কলেজে ছাত্রলীগের দুগ্রুপে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় ৭ জন আহত হয়েছেন। আহতরা হলেন- ইফতি, ইমন, ছাদিক, মেহরাব, সুজাত,  সম্রাট ও নয়ন। এরা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মসুদ ও সাধারণ সম্পাদক রাজু গ্রুপের অনুসারী। এ ঘটনায় পুলিশ নেওয়াজ ও আশিক নামে দুজনকে আটক করেছে।

ছাত্রলীগের দুটি অংশের কলেজে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের ঘটনায় কলেজের সাধারণ ছাত্র-ছাত্রী ও পথচারীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। কলেজ ক্যাম্পাস থেকে শুরু হয়ে পরবর্তীতে কলেজ রোডে প্রকাশ্যে উভয় গ্রুপের অস্ত্রসহ মহড়া চলে। এ সময় উভয় গ্রুপের নেতাকর্মীদের হাতে রামদা, রড, হকিস্টিক, লাঠিসহ দেশি অস্ত্র থাকতে দেখা যায়।

ঘটনার খবর পেয়ে শ্রীমঙ্গল থানার অফিসার ইনর্চাজ কেএম নজরুল ইসলাম পুলিশ ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

রাহাত ইমতিয়াজ রিপুল সভাপতি ও শাকের আলী সজীব সাধারণ সম্পাদক
আমার সিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,০৬মার্চ,শাব্বির এলাহী,কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার): দীর্ঘ এক যুগ পর অবশেষে অনুষ্ঠিত হলো কমলগঞ্জ উপজেলা, পৌর ও কলেজ ছাত্রলীগের সম্মেলন। রোববার(৫মার্চ) গভীর রাতে মৌলভীবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো: আসাদুজ্জামান রনি ও সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান রনি স্বাক্ষরিত এক প্রেস কিজ্ঞপ্তিতে আগামী এক বছরের জন্য রাহাত ইমতিয়াজ রিপুলকে সভাপতি ও মোঃ শাকের আলী সজীবকে সাধারণ সম্পাদক করে কমলগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের ১৭ সদস্যের নাম ঘোষণা করা হয়েছে।

উপজেলা কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন- সহ-সভাপতি মো. ফয়সল আহমেদ, হামিম মাহমুদ, মুহিবুল ইসলাম ছুন্নাহ, মো. রমজান আলী, মো. শাওন খান জসিম, মো. শাহাব উদ্দিন, বেলাল আহমদ তরফাদার, মতিউর রহমান শিমু,  যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুমন আহমদ, মো. রাসেল আহমদ ও মো. মনসুর খাঁন এবং সাংগঠনিক সম্পাদক মো. রুবেল চৌধুরী, মো. মিতুল খাঁন, মো. আশরাফুজ্জামান সুজন ও জাকেরুল ইসলাম।

এই কমিটি ঘোষণার মধ্যদিয়ে দীর্ঘ একযুগ পর কমলগঞ্জে ছাত্রলীগের রাজনীতি থেকে প্রভাবশালী দুই নেতা মো.  সানোয়ার হোসেন-শাহেদুল আলম এর বিদায় হয়েছে। ছাত্রলীগের নেতৃত্ব তুলে দেয়া হয়েছে তরুণদের হাতে। এদিকে মিনহাজ নাসিরকে সভাপতি ও রিংকু মল্লিককে সাধারণ সম্পাদক করে কমলগঞ্জ পৌর ছাত্রলীগ এবং আব্দুল হাকিমকে সভাপতি ও হাসান মিয়াকে সাধারণ সম্পাদক করে কমলগঞ্জ ডিগ্রী কলেজ ছাত্রলীগের কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে।

গত রোববার মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সম্মেলন শেষে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইনের  উপস্থিতিতে কাউন্সিলে শুরুর পর সভাপতি-সম্পাদক পদ ভাগিয়ে নিতে পদ প্রত্যাশীরা জোর লবিংয়ের পর গভীর রাতে ঘোষণা করা হয়েছে কমলগঞ্জ উপজেলা, পৌর ও কলেজ ছাত্রলীগের কমিটি।

  

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc