Tuesday 27th of October 2020 06:17:00 PM

চুনারুঘাট প্রতিনিধিঃ চুনারুঘাট উপজেলার দেওরগাছ ইউনিয়নের ঝুড়িয়া বড়বাড়ি গ্রামের মৃত মাতব্বর আলীর পুত্র ইব্রাহিম মিয়া (৫২), তার স্ত্রী ছালেকা খাতুন (৩৫), ইব্রাহিমের মেয়ে রিনা আক্তার (২৬), চুনারুঘাট সরকারি কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রী জোসনা আক্তার (১৭), তারা মিয়ার পুত্র ইসমাইল মিয়া (২২) দেরকে পূর্ব বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় একই পরিবারের ৫ জন গুরুতর আহত হয়েছে।

জানা যায়, সোমবার দুপুর ১২টার দিকে উপজেলার ঝুড়িয়া বড়বাড়ি গ্রামের বৃদ্ধা ইব্রাহিম নিজ বসতবাড়িতে এ ঘটনাটি ঘটে। আহতদের আত্ম চিৎকারে স্থানীয় লোকজনরা এগিয়ে এসে আশংকাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে চুনারুঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আহত ইব্রাহিম মিয়া জানান, সোমবার দুপুরের দিকে তিনি বাড়ি হতে বের হয়ে চুনারুঘাট বাজারে আসার পথে নিজ বসতবাড়ির পূর্ব দিকের রাস্তায় পৌছা মাত্রই পূর্ব থেকে ওতপাতিয়া থাকা ঝুড়িয়া বড়বাড়ি পার্শ্ববর্তী একই গ্রামের ইব্রাহিম মিয়ার বড় ভাই তারা মিয়ার পুত্র মনিরুল ইসলাম (৩০), মোস্তফা (২০), তারা মিয়ার জামাতা এনামুল হক (২৫) সহ একদল দূর্বত্তরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে পূর্ব বিরোধের জের ধরে ইব্রাহিম মিয়ার পথরোধ করতঃ চাচা ইব্রাহিম মিয়াকে বেধড়ক পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।

এসময় ইব্রাহিম মিয়ার আত্ম চিৎকার শুনিয়া তাহার স্ত্রী ও মেয়েরা তাকে বাঁচাতে এগিয়ে আসলে দূর্বৃত্তরা ইব্রাহিম মিয়ার স্ত্রী ও মেয়েদেরকে মাথায় কুপিয়ে ও বেধড়ক মারপিট করে গুরুতর আহত করে পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে ঘটনাটি শুনে চুনারুঘাট সরকারি কলেজের প্রিন্সিপাল অসিত কুমার পাল সহ অন্যান্য শিক্ষকরা কলেজ ছাত্রী জোসনা আক্তারকে হাসপাতালে দেখতে এসে দুঃখ প্রকাশ করেন।

এ ঘটনায় ইব্রাহিম মিয়া বাদী হয়ে চুনারুঘাট থানায় ৪/৫ জনকে আসামী করে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে আহত সূত্রে জানা যায়। উল্লেখ্য যে, আহত রিনা আক্তার (২৬) ৭ মাসের গর্ভবতী অবস্থায় তাহার মাথায় কুপিয়ে ক্ষত-বিক্ষত করে আশংকাজনকভাবে তাকে উন্নত চিকিৎসার আধুনিক জেলা সদর হাসপাতাল, হবিগঞ্জ এ প্রেরণ করা হইয়াছে।

আমার সিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,১০জুন,কমলগঞ্জ প্রতিনিধিঃ     শনিবার (৯ জুন) বেলা পৌণে ৩টায় কমলগঞ্জ সদর ইউনিয়নের কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল সড়কের ফরেষ্ট ডরমিটরী এলাকায় যাত্রীবাহী বাস ও সিএনজি অটোরিক্সার মুখোমুখি সংঘর্ষে সিএনজি অটো চালক ইলিয়াস মিয়া (৩০) মারা গেছে।

সংঘর্ষে অটোরিক্সার ৪ নারী যাত্রীসহ ৫ জন আহত হয়েছেন শ্রীমঙ্গল থেকে যাত্রীবাহী একটি সিএনজি অটোরিক্সা(মৌলভীবাজার থ-১১-২৪৮০) কমলগঞ্জে আসার পথে বিপরীত দিক থেকে এম আর পরিবহনের যাত্রীবাহী বাস( ঢাকা মেট্রো-জ-১৪-১৪০৬) এর ধাক্কায় রাস্তার ধারে সিটকে একটি গাছে আটকা পড়ে। ঘটনার পর থেকে বাসের চালক পালিয়ে যায়।

সংঘর্ষে গুরুতর আহত সিএজি অটোর চালক ইলিয়াছ মিয়া (৩০) কে কমলগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাবার পথে সে মারা যায়। নিহত চালক ইলিয়াছ মিয়া আদমপুর ইউনিয়নের পূর্ব জালালপুর গ্রামের মৃত ইউনুছ মিয়ার ছেলে। আহত কাশেম মিয়া (২৭),তাহমিনা বেগম(২০),সালেখা বেগম (৩০), শিরিনা বেগম (২৫) ও স্বপ্না বেগম (৩৫) এ ৫জনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাদের মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

কমলগঞ্জ থানার এসআই কৃষ্ণ মোহন দেবনাথ বাস সিএনজি অটোর মুখোমুখি সংঘর্ষের ১ জন নিহত ও ৫ জন আহত হওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন বাসটি আটক করা হয়।

আমারসিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,১৭মার্চ,জাহাঙ্গীর আলম ভুঁইয়া,তাহিরপুর-সুনামগঞ্জঃ   সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে উপজেলার যাদুকাটা নদীতে বারুনী মেলায় অজ্ঞান পাটির খপ্পরে পড়ে ৫জন আহত হয়েছে। তাদের কাছ থেকে হাতিয়ে নিয়েছে নগদ ১৮হাজার টাকাসহ মূল্যবান জিসিনপত্র। আহতদের বাদাঘাট বাজারে ডাক্তার হাফিজ উদ্দিনের কাছে প্রাথমিক চিকিৎসা নিচ্ছে। আহতরা হলেন,প্রদীপ চন্দ্র বিশ্বাস (৩০), বিশ্বচন্দ্র বিশ্বাস (৪৫),মিজান (২৬),নৌকার মাঝিসহ ৫জন। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার রাতে ১২টায়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,যাদুকাটা নদীতে গাঙ্গা স্নানে শ্রী অদ্বৈত্য আর্চায মহাপ্রভুর নবগ্রাম খ্যাত রাজাগাঁওস্থ আঁখড়া বাড়ির সংলগ্ন সীমান্তনদী ২৩কিঃমিঃ দৈর্ঘ জাদুকাটা নদীতে মেলায় মেলায় কিশোরগঞ্জ জেলার কুলিয়ারচর থেকে বিশ্ব চন্দ্র বিশ্বাস মেলায় ফার্নিচারের দোকান নিয়ে সাথে ৫জন সহযোগী নিয়ে আসেন বেচা কেনার জন্য। বৃহম্পতিবার রাতে খাবারের সাথে তাদের অজান্তেই তাদের সবাই কে আজ্ঞান করে তাদের কাছ থেকে হাতিয়ে নিয়েছে ১৮হাজার টাকা। বিশ্বচন্দ্র বিশ্বাস জানান,আমরা জানি না কারা করেছে এমন ঘটনা। আমাদের কাছে টাকা আরো বেশী ছিল সেগুলো পায় নি। পেলে সব টাকাই নিয়ে নিত। আমরা এখন আতংকের মাঝে আছি।

উল্লেখ্য,প্রতি বছর হিন্দুধর্মালম্বীরা যাদুকাটা নদীতে গঙ্গা স্নানে শ্রী অদ্বৈত্য আর্চায মহাপ্রভুর নবগ্রাম খ্যাত রাজাগাঁওস্থ আঁখড়া বাড়ির সংলগ্ন সীমান্তনদী ২৩কিঃমিঃ দৈর্ঘ জাদুকাটা নদীতে পণতীর্থে ৩০ফাল্গুন-১৪মার্চ বুধবার থেকে ৩দিন দিন ব্যাপী মহাবারুণী মেলা বসে। বারুণী মেলা চলবে ৩০ফাল্গুন,১ ও ২চৈত্র-১৪,১৫মার্চ এবং ১৬মার্চ ভোর বেলা শুক্রবার আরতির মাধ্যমে বারুণী মেলার সমাপ্ত হবে।

আমারসিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,১৩ফেব্রুয়ারি,জহিরুল ইসলাম মৌলভীবাজার: মৌলভীবাজারের কুলাউড়ায় কর্মসূচি পালনে বাধা দেওয়ায় পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এসময় পুলিশকে লক্ষ্য করে ইপ পাটকেল নিপেক্ষ করলে পুলিশের উপ পরিদর্শকসহ ৫ পুলিশ আহত হয়।

আজ মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারী) সাড়ে ১২ টায় কুলাউড়া পৌরসভার সামনে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে বিএনপির অবস্থান ধর্মঘট পালনের সময় এ ঘটনা ঘটে।
আহতরা হলেন-কুলাউড়া থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) জহিরুল ইসলাম, পুলিশ সদস্য সনক কান্তি দাস, সাইফুল ইসলাম, সুব্রত তালুকদার, ইমাম উদ্দিন প্রমুখ।
জানা যায়, বিএনপি নেতাকর্মীরা অবস্থান ধর্মঘট পালনের চেষ্টা করলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। একপর্যায়ে পুলিশের সঙ্গে বাকবিত-ায় জড়িয়ে পড়ে বিএনপি’র নেতাকর্মীরা। এসময় তাদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া শুরু হলে পুলিশকে উদ্দেশ্য করে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে বিএনপি নেতাকর্মীরা। এতে আহত হন ৫ পুলিশ সদস্য। এস আই সনক কান্তি দাস’কে গুরুতর আহত অবস্থায় কুলাউড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।
কুলাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. শামীম মূসা জানান, বিএনপির নেতাকর্মীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করলে এ সময় ৫ পুলিশ সদস্য আহত হয়। এ ঘটনায় কুলাউড়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

আমারসিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,১৯সেপ্টেম্বর,শাব্বির এলাহী: মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে সোমবার(১ সেপ্টেম্বর) গভীর রাতে এক দুধর্ষ ডাকাতিতে নারীসহ ৩জন গুলিবিদ্ধ হয়ে ৫জন আশংকাজনক অবস্থায় সিলেট ওসমানী মেডিকলে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। মুখোশপড়া ১৫-২০ সদস্যের ডাকাতদল পরিবারের সদস্যদের গুলি ও কুপিয়ে লুট করে নিয়েছে নগদ স্বর্নলাংকার,মোবাইলসহ প্রায় ৮/১০ লাখ টাকার মালামাল। এ দিন দিবাগত রাত ২টায় উপজেলার জালালিয়া গ্রামের ব্যাংক কর্মকর্তা নিপতি রঞ্জন চৌধুরীর বাড়িতে এ ঘটনাটি ঘটেছে। খবর পেয়ে মঙ্গলবার সকালে মৌলভীবাজার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালালসহ পুলিশির একটি দল ঘটনাস্থল পরির্দশন করেন।
বাড়ির লোকজনরা জানান, সোমবার ভোররাতে মুখোশপড়া ১৫/২০ জনের একটি ডাকাত দল শ্রীমঙ্গল সোনালী ব্যাংকের ক্যাশিয়ার নিপতি রঞ্জন চৌধুরীর ঘরের কলাপসিবল গেটের তালা ও পরে দরজা ভেঙ্গে ঘরে মধ্যে প্রবেশ করে ঘুমে থাকা পরিবারের লোকজনকে বেঁধে আলমারির ভেঙ্গে কাপড় চোপড় তছনছ করে। একই সময়ে আরেকটি দল প্রতিবেশী আপন ভাই ধনবতী চৌধুরী ও বিশ্ববতী চৌধুরীর ঘরের দরজা ভেঙ্গে ভেতরে প্রবেশ করে পুরুষদেরকে বেঁধে আলমারি ভেঙ্গে মালামাল তছনছ করে।

ডাকাতরা ব্যাংকার নিপতি রঞ্জনকে বেঁধে নির্যাতন করার সময়ে বাবাকে রক্ষায় এগিয়ে গেলে ছেলে শাহীন কলেজে পড়ুয়া দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী নিরুপম চৌধূরী (১৬), মেয়ে একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী অনামিকা রানী চৌধুরী (১৯)সহ তিনজনকে গুলি করে। পার্শ্ববর্তী ঘরের ধনবতী চৌধুরী (৪২) ও বিশ্ববতী চৌধুরী (৩৮) কে দা দিয়ে কূপিয়ে গুরুতর আহত করে। ডাকাত দল দুইটি ঘর থেকে নগদ ১০ হাজার টাকা, ২০ ভরি ওজনের স্বর্ন ও ৪টি মোবাইল ফোনসহ প্রায় ৮/১০ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।

ডাকাত দল ফাঁকা গুলি করে এলাকা ত্যাগ করে। পরে আহতদের ভোরেই সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।সংবাদ পেয়ে কমলগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছালেও ডাকাত দলকে ধরতে পারেনি। এ দিকে পুজার আগে একটি সংখ্যালঘুর বাড়িতে দুর্ধর্ষ ডাকাতির সংবাদ পেয়ে মৌলভীবাজার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শাহজালাল কমলগঞ্জের জালালিয়া গ্রামে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

এ সময় সঙ্গে ছিলেন সহকারী পুলিশ সুপার আনোয়ারুল ইসলাম ও এএসপি সার্কেল মো. আশফাকুজ্জামান। এছাড়া স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ফজলুল হক বাদশা, মৌলভীবাজার জেলা পরিষদ সদস্য মো. হেলাল উদ্দীন আহতদের পরিবারকে শান্তনা দেন।

এ ব্যাপারে কমলগঞ্জ থানার দায়িত্বপ্রাপ্ত (ওসি,ওসি তদন্ত ছুটিতে) এসআই মিহির রঞ্জন দে বলেন, ঘটনাটি ডাকাতি। পুলিশের তদন্ত চলছে। তবে এখানো কোন অভিযোগ পাইনি পেলে মামলা হবে।

আমার সিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,১৭জুন,চুনারুঘাট প্রতিনিধি: চুনারুঘাটের পল্লীতে কাঠ ব্যবসায়ীর নগদ টাকা ছিনতাইসহ পৃথক তিনটি ঘটনায় অন্তসত্বা মহিলাসহ ৫জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাদেরকে চুনারুঘাট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা যায় উপজেলার বরাব্দা সাব বাড়ীর কাঠ ব্যবসায়ী মৃত সৈয়দ বাদশা মিয়ার ছেলে সৈয়দ মোঃ রফিকুল ইসলাম বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে আলীনগর গ্রাম থেকে তার ব্যবসায়িক কাজ শেষে টমটম যোগে ফেরার পথে পথিমধ্যে বাসুল্লা বাজারের দক্ষিণ দিকে ব্রীজের নিকট আসা মাত্রই ছিনতাইকারী চক্রের গডফাদার সোহেল মিয়া,জসিম উদ্দিন ও সাইফুল ইসলামসহ একদল দূর্বৃত্ত অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে ব্যবসায়ী রফিকের গাড়ি গতিরোধ করে আটক করে এলোপাতাড়ি হামলা চালিয়ে তার সাথে থাকা নগদ ৩৫হাজার টাকাসহ মালামাল ছিনতাই করে নিয়ে যায়। তার সুর চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে আহত রফিককে উদ্দার করে চুনারুঘাট হাসপাতালে ভর্তি করে।

আহত রফিক জানায়, ঐ ছিনতাইকারীদের বিরুদ্ধে সিএনজি ছিনতাইসহ অনেক অভিযোগ রয়েছে। অপরদিকে, গতকাল দুপুর আড়াইটার দিকে মিরাশী ইউনিয়নের লালকিয়ার আদর্শ গ্রামের দিনমজুর বর্গাচাষি আঃ মান্নান (৩০) কে বর্গাচাষ নিয়ে একই গ্রামের আঃ হামিদ দা দিয়ে কুপিয়ে রক্তাত্ব জখম করে। এসময় মান্নান গুরুত্বর আহত হলে তাকে চুনারুঘাট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এদিকে চুনারুঘাট পৌরশহরের পশ্চিম বড়াইল গ্রামের আঃ জাহিরের বাড়ীর সিমানার উপর দিয়ে একই গ্রামের নুরুল ইসলাম ও আবু তাহের জোরপূর্বক পানি নিষ্কাসনের নালা তোলতে বাধা দিলে নুরুল ইসলাম ও তার ভাই দেশি অস্ত্র দিয়ে আঃ জাহির (৩৫), তার অন্তসত্বা স্ত্রী রুবি আক্তার (৩০) ও তার ভাই আব্দুল কালাম (৪৫) কে হামলা চালিয়ে আহত করে।

গুরুত্বর আহত তাদেরকে চুনারুঘাট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ রিপোর্ট লেখা পর্য়ন্ত মামলার প্রস্তুতি চলছিল।

আমার সিলেট টুয়েন্টি ফোর ডটকম,১৭এপ্রিল,সুনামগঞ্জ প্রতিনিধিঃ সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে টাংগুয়ার হাওরে নৌকা ডুবিতে ১জেলে নিখোঁজ রয়েছে। এঘটনায় আহত হয়েছে ৫জন। নিখোঁজ ব্যাক্তি জেলার মধ্যনগড় থানা রুপনগর গ্রামের উসমান গনি ছেলে সাজিকুল মিয়া (২৭)।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়,রবিবার সকাল সাড়ে ৫টায় সময় সাজিকুল মিয়া সহ ৮-৯জনের জেলে কাঠের তৈরী ডিঙ্গি নৌকা নিয়ে টাংগুয়ার হাওরে মাছ ধরতে যায়।

টাংগুয়া থেকে ভেরভেরিয়া হাওরে যাওয়া পথে হঠাৎ করে প্রচন্ড ঝড়ের কবলে পরে নৌকা উল্টে যায়। এ সময় সবাই সাতড়ে পাড়ে উঠতে পারলেও সাজিকুল মিয়া পানি ডুবে যায়। অনেক খোজাঁখুজি করার পরেও তার কোন সন্ধান পাওয়া যায় নি।

টাংগুয়ার হাওরের দায়িত্বে থাকা ম্যাজিষ্ট্রেট শামিম আল ইমরান এঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

 

আমার সিলেট টুয়েন্টি ফোর ডটকম,০৪এপ্রিল,সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি,সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলায় টাংগুয়ার হাওরে ট্রলার ডুবিতে এক শিশু সহ চারজন নিখোঁজ রয়েছে। নিখোঁজ ব্যাক্তিরা হলেন,এক বছরের শিশির নাম জাহিদ,হযরত আলী (৫০),ফজলুল হক (২৫),জাকির হোসেন (২৬)। এঘটনায় আহত হয়েছেন পাচঁজন তারা হলেন,মুক্তার হোসেন (৩৫),তার স্ত্রী আনোয়ারা (২৫),আরিফ (২৪),আলী নেওয়াজ(২৩)। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। স্থানীয় ও পুলিশ সুত্রে জানাযায়,গত মঙ্গলবার ভোরে উপজেলার উত্তর শ্রীপুর ইউনিয়নের বাগলী গ্রাম থেকে দক্ষিন শ্রীপুর ইউনিয়নের লামাগাঁও গ্রামের কাছে শিববাড়িতে বাসন্তী পূজায় যাওয়ার জন্য কাঠের তৈরী ইঞ্জিন চালিত নৌকা দিয়ে রওনা হয়।

টাংগুয়ার হাওরের হাতিরকান্দা বিল পাড়ি দেওয়ার সময় প্রচন্ড ঝড়ের কবলে পরে মুক্তার হোসেন (৩৫),তার স্ত্রী আনোয়ারা (২৫) ও তাদের এক বছরের শিশু জাহিদ(১),সহ হযরত আলী (৫০),ফজলুল হক (২৫),জাকির হোসেন (২৬),আরিফ (২৪),আলী নেওয়াজ (২৩) সহ ১০-১২জন ব্যবসায়ীর নৌকা উল্টে যায়। এ সময়  মুক্তার হোসেন (৩৫),তার স্ত্রী আনোয়ারা (২৫),আরিফ (২৪),আলী নেওয়াজ (২৩) সহ অন্যরা সাতরে পাড়ে উঠলেও এক বছরের শিশু জাহিদ,হযরত আলী(৫০),ফজলুল হক(২৫),জাকির হোসেন(২৬) নিখোঁজ রয়েছে।

খবর পেয়ে স্থানীয় লোকজন সহ সুনামগঞ্জ থেকে ফায়ার সার্ভিসের লোকজন সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত চেষ্টা করে নৌকা ও নিখোঁজ লোকজন কে উদ্ধার করতে পারে নি। টাংগুয়ার হাওরের দায়িত্বে থাকা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট শাকিল আহমেদ জানান,সকাল থেকে স্থানীয় লোকজন ও সুনামগঞ্জ থেকে ফায়ার সার্ভিসের লোকজন ও ডুবোরী দিয়ে তল্লাশী চালিয়ে নৌকা ও নিখোঁজ লোকজনের সন্ধান পাওয়া যায় নি। নিখোঁজদের উদ্ধারের চেষ্টা করছি। তাহিরপুর থানার ওসি নন্দন কান্তি ধর এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।আপডেট

  

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc