Thursday 26th of November 2020 06:48:09 AM

ডেস্ক নিউজঃ আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থী হতে চাচ্ছেন না জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন। বিএনপির পক্ষ থেকে তাকে প্রার্থী হতে অনুরোধ জানালে শারীরিক অসুস্থতার কথা জানান। গত ৯ নভেম্বর রাজশাহীর ঐতিহাসিক মাদ্রাসা ময়দানের জনসভায়ও তিনি এ কারণে যেতে পারেনি। তবে মোবাইল ফোনে উপস্থিত নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বক্তব্য দেন ড. কামাল।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিএনপির স্থায়ী কমিটির এক সদস্য বলেন, ‘ড. কামাল হোসেনকে আমিও নির্বাচনে প্রার্থী হতে অনুরোধ করেছি। কিন্তু তিনি কোনোভাবেই রাজি হচ্ছেন না।’একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন ঘিরে উদ্ভূত রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছেন ড. কামাল হোসেন।

দেশে-বিদেশে তার পরিচিতি থাকার সুযোগকে কাজে লাগিয়ে ঘুরে দাঁড়ায় বিএনপি। ইত্তেফাক জানায়,একই সঙ্গে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নিরপেক্ষ সরকারের দাবিসহ সাত দফার পক্ষে জোরালো অবস্থান নেন আ স ম আবদুর রব, মাহমুদুর রহমান মান্না ও বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকীর মতো দেশের বিশিষ্ট রাজনীতি করা।ড. কামালের ঘনিষ্ঠ সূত্র তার বরাত দিয়ে জানিয়েছেন, শারীরিক অসুস্থতার কারণে তিনি বাসায়ই থাকছেন গেল কয়েক দিন ধরে।

প্রিতম পাল,শ্রীমঙ্গল হতেঃ মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে আসন্ন শারদীয় দূর্গাপূজা উপলক্ষে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শ্রীমঙ্গল উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে মঙ্গলবার(৯অক্টোবর) সকালে অনুষ্ঠিত এই মতবিনিময় সভায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. নজরুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সরকারী প্রতিশ্রুতি সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব উপাধ্যক্ষ ড. মো. আব্দুস শহীদ এমপি।

বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন শ্রীমঙ্গল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রনধীর কুমার দেব, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান প্রেমসাগর হাজরা, শ্রীমঙ্গল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কে এম নজরুল, শ্রীমঙ্গল উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মো. আছকির মিয়া, উপজেলা স্বাস্থ কর্মকর্তা ডা. জয়নাল আবেদীন টিটু প্রমুখ।

মতবিনিময় সভায় বক্তারা আসন্ন দূর্গাপূজা শান্তিপূর্ণ ও উৎসবমুখর পরিবেশে উদযাপনের লক্ষ্যে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য অনুরোধ জানান।

আমারসিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,২১মে,ডেস্ক নিউজঃ আসন্ন বাজেটে তথ্যপ্রযুক্তি খাত বান্ধব সিদ্ধান্তই নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। সোমবার (২১ মে) সচিবালয়ে অর্থ মন্ত্রণালয়ে বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস) কার্যনির্বাহী পরিষদের সঙ্গে বৈঠকে একথা বলেন তিনি।

বৈঠকে ২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেটকে সামনে রেখে সফটওয়্যার ও আইটি সেবার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট বিদ্যামান কর, মূসক, শুল্ক এবং আইটি কোম্পানিসমূহের জাতীয় রাজস্ব বোর্ড থেকে কর অব্যাহতি সনদ ইস্যুকরণ, ইইএফ অবিলম্বে চালুকরণসহ বিভিন্ন ইস্যুতে আলোচনা হয়েছে। পাশাপাশি, স্থানীয় সফটওয়্যার ও আইটি প্রতিষ্ঠানসমূহ যাতে দেশের সকল ক্ষেত্রে স্থানীয়ভাবে তৈরি সফটওয়্যার ব্যবহার করে এ বিষয়ে পদক্ষেপ গ্রহণ এবং সচেতনতা সৃষ্টির ব্যাপারেও ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে।

দেশের তথ্যপ্রযুক্তি খাতের অভিভাবক সংস্থা হিসেবে ডিজিটাল বাংলাদেশের রূপকল্প বাস্তবায়নে সরকারের সঙ্গে একযোগে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করে বেসিস।

এসময় অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বেসিসের প্রস্তাবগুলোকে গুরুত্ব সহকারে বিবেচনার আশ্বাস দেন। পাশাপাশি অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশের তথ্যপ্রযুক্তি খাতের উন্নয়ন, যেকোনো দেশের জন্যেই অনুসরণীয়। তথ্যপ্রযুক্তি খাতের উন্নয়নে বেসিস অনেকদিন ধরেই সরকারের সঙ্গে কাজ করছে। আসন্ন বাজেটে তথ্যপ্রযুক্তি খাত বান্ধব সিদ্ধান্তই নেয়া হবে।’

বৈঠকে উপস্থিত বেসিসের জ্যেষ্ঠ সহ-সভাপতি ফারহানা এ রহমান বলেন, বেসিস তথ্যপ্রযুক্তি খাতের উন্নয়নে এবং স্থানীয় তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানের অগ্রাধিকার যাতে আসন্ন বাজেটে প্রতিফলিত হয়, সেই যৌক্তিক দাবিগুলো তুলে ধরেছে। অর্থমন্ত্রী অত্যন্ত গুরুত্বসহকারে আমাদের প্রস্তাবগুলো শুনেছেন। আশা করি, আসন্ন বাজেটে আমরা এর প্রতিফলন দেখতে পাবো।

বৈঠকে বেসিসের জ্যেষ্ঠ সহ-সভাপতি ফারহানা এ রহমানের নেতৃত্বে অংশ নেন বেসিস সহ-সভাপতি (প্রশাসন) শোয়েব আহমেদ মাসুদ, সহ-সভাপতি (অর্থ) মুশফিকুর রহমান, পরিচালক মোস্তফা রফিকুল ইসলাম এবং পরিচালক দিদারুল আলম সানি।

  

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc