Thursday 12th of December 2019 04:54:24 PM

“হাওরের জীবন” হালিমা খাতুন

 

সবুজ পাহাড়,ধানের ক্ষেত,হাওর-নদী আকাঁ বাকাঁ মেটোপথ

জেলে-নদী-নৌকা ও জল হাওরবাসীর এই তো জীবন।

যেন শিল্পীর তুলিতে আকাঁ একখানা ছবির মতন,

বিস্তীর্ন জলরাশির বুকে বিশাল নীল আকাশের প্রতিচ্ছবি।

কখনও আবার সেখানে শুরু হয় উত্তাল আফালের তান্ডব,

তবুও এখানে আছে জীবন, আর জীবিকার অবাধ বিচরণ।

হাওরের বুকে অনিশ্চিত গন্তব্যে বেচেঁ থাকে সবুজ সোনালী শস্য

 আছে রুপালী মাছদের নিয়ে জেলেদের জীবনের স্বপ্ন।

হাওরে  বিরামহীন বরষনে সুর উঠে হাসনরাজা,শাহ আব্দুল করিম

দুরবীন শাহ,রাধা রমনের গানে মুখরিত হাওরের জনপদ।

যুগ যুগ ধরে হাওরবাসী জীবনের স্বপ্ন আকেঁ সোনালী শস্যে

 অকুল জলরাশির স্বপ্নীল ঢেউয়ে ভর করে।

নাজমুল হক নাহিদ,আত্রাই (নওগাঁ) প্রতিনিধি: উপজেলা ইমাম সমিতি কর্তৃক আয়োজিত সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ এবং বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে আলেম- ওলামাদের ভূমিকা শীর্ষক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ছানাউল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব এবাদুর রহমান, নওগাঁ জেলা ইসলামীক ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক মো. গোলাম মোস্তফা, আত্রাই থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. মোসলেম উদ্দিন প্রমুখ।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ছানাউল ইসলাম সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ এবং বাল্য বিবাহের কারণ ও তার প্রতিকার বিষয়ক ভিডিওচিত্র প্রজেক্টরের মাধ্যমে উপস্থাপন করেন।

সভায় উপজেলার ইসলামিক ফাউন্ডেশন, আলেম-ওলামা এবং ইমাম সমিতির নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

মৌলভীবাজার প্রতিনিধিঃ  গত ২৮/১১/২০১৯ইং তারিখ সন্ধ্যা রাত্র প্রায় সাড়ে সাতটায় সাফোয়ান (১৪) নামক এক কিশোর নিখোঁজ হওয়া সংক্রান্তে বড়লেখা থানায় সাধারণ ডায়েরী নং-১৩৮৪, তারিখ-২৯/১১/২০১৯ইং লিপিবদ্ধ করলে পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ পিপিএম (বার) এর নির্দেশনায় বড়লেখা থানা পুলিশ চার দিন পর তদন্তে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে ঢাকার ফকিরাপুল এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে।

উক্ত অভিযানে ফকিরাপুল বাস ষ্ট্যান্ডে অবস্থিত শামছুন নূর আবাসিক হোটেলে এ ভিকটিম এর অবস্থান ছিল মর্মে নিশ্চিত হয়। তথায় সিসি টিভির ফুটেজ এবং হোটেল এর কর্মচারীদের জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় গত ৩০/১১/২০১৯ইং তারিখ রাত্রবেলা শ্যামলী গাড়ী যোগে চট্টগ্রাম চলিয়া যায়। পরবর্তীতে চট্টগ্রাম পৌছাইয়া সিএমপি কোতয়ালী থানা পুলিশের সহায়তায় ০১/১২/২০১৯ইং তারিখ দিবাগত রাত্রে ভিকটিম সাফোয়ানকে উদ্ধার করা হয়।

ভিকটিম সাফোয়ানকে জিজ্ঞাসাবাদ করিলে সে জানায়, একটি মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল ও বেশ কিছু টাকা ঋণ ছিল। একপর্যায়ে ভালোবাসা সম্পর্কে টানাপোড়েন, ঋণ পরিশোধ না করতে পারা এবং ভালোবাসার সম্পর্ক পূণঃস্থাপন না করতে পারার ক্ষোভ ও অভিমানে মায়ের দেওয়া চাল ক্রয়ের ২,০০০/-টাকাসহ নিজেই আত্মগোপনে চলিয়া যায়। তাহার প্রেমিকার সাথে ভালেবাসার সম্পর্ক পুনঃস্থাপনে তাহাদেরকে বাধ্য করার জন্যই তাহার এই আত্মগোপন নাটক সাজানো।

বর্তমানে ভিকটিম সাফোয়ানকে বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে তাহার পরিবারের কাছে হস্তান্তরের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন আছে বলে মৌলভীবাজার জেলার পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদের সূত্রে জানা গেছে।

নাজমুল হক নাহিদ,আত্রাই (নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁয় আত্রাইয়ে প্রথম বারের মতো দুর্যোগ সহনীয় বাড়ি নির্মাণ করে দিয়েছে সরকার। দুর্যোগ ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের কাবিটা ও টিআর কর্মসূচির বিশেষ খাতের অর্থে মানবিক সহায়তায় এসব বাড়ি পায়েছে ১৫টি পরিবার। ওই কর্মসূচির আওতায় উপজেলার অসচ্ছল, হতদরিদ্র, ঘরহীন, নদীভাঙনসহ বিভিন্ন দুর্যোগে গৃহহীন পরিবার, বিধবা, তালাক প্রাপ্ত মহিলা, প্রতিবন্ধী নারী-পুরুষ ১৫টি পরিবারের মধ্যে পাকা বাড়ি নির্মাণ করে দেওয়া হয়েছে।
বাড়ি প্রাপ্তরা হলেন উপজেলার পাইকড়া গ্রামের সাগর আকরাম মন্ডল, হাটকালুপাড়া গ্রামের শহিদুল ইসলাম, সত্যেন্দ্রনাথ প্রামানিক, দিঘা দক্ষিনপাড়া গ্রামের আ: আজিজ মন্ডল, পাঁচুপুর গ্রামের গজেন কুমার পাল, নওদুলী গ্রামের সমরেশ আলী, শিমুলকুচি গ্রামের হাফিজা বেগম, বাঁকা গ্রামের রঞ্জিত প্রামানিক, দীঘা গ্রামের নূর উদ্দিন প্রামানিক, কাশ্যবপাড়া গ্রামের আব্দুল আলী দেওয়ান, একই গ্রামের জাইদুল দেওয়ান, তেজনন্দী গ্রামের আফছার আলী, ফটোকিয়া গ্রামের আবু বক্কর সিদ্দিক, বলরামচক গ্রামের আফজাল ফকির এবং রসুলপুর গ্রামের সাবিনা খাতুন।
এ বিষয়ে উপজেলার হাটকালুপাড়া গ্রামের শহিদুল ইসলাম, সত্যেন্দ্রনাথ প্রামানিক ও পাঁচুপুর গ্রামের গজেন কুমার পাল জানান, নিজেদের সামান্য জমি থাকলেও ঘর বানানোর সামর্থ্য নাই। বেঁচে আছি গ্রামের মানুষের সাহায্য সহযোগিতা নিয়ে। সরকারি খরচে দুর্যোগ সহনীয় বাড়ি পাওয়ার শেষ জীবনটা হবে সুখের, নতুন বাড়িতে ভালভাবে থাকতে পারব এমনটিই আশাবাদি তারা।
উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসার (পিআইও) নভেন্দু নারায়ন চৌধুরী জানান, আত্রাই উপজেলায় ১৫টি নির্মাণ করা হয়েছে। তিনি জানান, বাড়িগুলো ইট দিয়ে তৈরি , কাঠের দরজা-জানালা, অত্যাধুনিক রঙিন টিনের ছাউনি, ১০ ফিট লম্বা ও ১০ ফিট আয়তনের দুই কক্ষের বাড়ি, একটি রান্নাঘর ও স্বাস্থ্যসম্মত শৌচাগার থাকবে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের তত্বাবধানে দুর্যোগ প্রতিরোধী এমন বাড়ি সম্পূর্ণ বিনামূল্যে নির্মাণ করে দিচ্ছে সরকার। ২০১৮-১৯ অর্থবছরে প্রত্যেকটি বাড়ি নির্মাণে সরকারের খরচ দুই লাখ ৫৮ হাজার ৫৩১ টাকা।
এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ছানাউল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, হতদরিদ্রদের জন্য দুর্যোগ সহনীয় ঘর নির্মাণ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অভিনব ও চমৎকার একটি কর্মসূচি। দরিদ্রতা থেকে উত্তরণের জন্য এবং হতদরিদ্র মানুষের জীবনমান উন্নয়নের লক্ষে সরকার এ কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। আর এ কারণে সরকারের দুর্যোগ ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের কাবিটা ও টিআর কর্মসূচির বিশেষ খাতের অর্থে এই ঘর গুলো নির্মাণ করা হয়েছে।
তিনি বলেন, এই কর্মসূচিতে গ্রামের অসচ্ছল, হতদরিদ্র, ঘরহীন, বিধবা, তালাকপ্রাপ্ত মহিলা, প্রতিবন্ধী নারী-পুরুষ বিনামূল্যে পাচ্ছে দুর্যোগ সহনীয় ঘর। এই কর্মসূচির মূল উদ্দেশ্যে হচ্ছে, গ্রামের এই পিছিয়ে পড়া মানুষের জীবনমানের উন্নয়ন ও জীবনযাত্রার পরিবর্তন করা।
তিনি আরও বলেন, উপজেলায় বিভিন্ন জরিপের মাধ্যমে গৃহহীনদের দুর্যোগ সহনীয় ১৫টি বাড়ি দেওয়া হয়েছে।

অনুজকান্তি দাশঃ মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের আওতাধীন ই-জোন আইটি ইন্সটিটিউট এর ১ যুগে পর্দাপন উপলক্ষে ফ্রিল্যান্সিং ল্যাব এর উদ্ভোধন করা হয়েছে। গতকাল ৩ ডিসেম্বর মঙ্গলবার সকাল ১১ টায় শহরের কলেজ রোডস্থ ই-জোন কার্যালয়ে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে তোরন উরিয়ে, ফিতা ও কেক কেটে ফ্রিল্যান্সিং ল্যাব এর শুভ উদ্ভোধন করেন উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান প্রেমসাগর হাজরা। এসময় অন্যদের উপস্থিত ছিলেন প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান সুমন দেববর্মা, পরিচালক বিশ্ব রাজ ধর পাপ্পু, ফ্রিল্যান্সার সোহাগ নকরেক, সাংবাদিক আতাউর রহমান কাজল, বঙ্গকবি লৎফুর রহমান, অনুজকান্তি দাশ, আলোঘর প্রজেক্ট এর এরিয়া ম্যানেজার সামুয়েল যোসেফ, শ্রীমঙ্গল স্টুডেন্ট সোসাইটির সভাপতি মো. শামীম মিয়া, তুফায়েল পাপ্পু, রুপম আচার্য্য প্রমুখ।
ই-জোন এর চেয়ারম্যান সুমন দেববর্মা বলেন, ২০০৮ সালের ৩ ডিসেম্বর তারিখে মাত্র ২টি কম্পিউটার দিয়ে প্রতিষ্ঠানটির যাত্রা শুরু হয়। বর্তমানে শ্রীমঙ্গল ও কমলগঞ্জ উপজেলায় তাদের ৬টি শাখা হয়েছে। এই ফ্রিল্যান্সিং ল্যাবের মধ্যে ছাত্র/ছাত্রীদের পড়াশোনার পাশাপাশি গ্রাফিক্স ডিজাইন এন্ড ফ্রিল্যান্সিং কোর্স করে যাতে করে অনলাইনের মাধ্যমে অর্থ উর্পাজন করতে পারে সেই লক্ষ্য নিয়ে এই ল্যাবটি চালু করা হয়। এতে করে শিক্ষার্থীদের কর্মসংস্থানের পথ তৈরী হবে। এ সময় ফ্রিল্যান্সিং কোর্সে ভর্তি হওয়া প্রথম ১০০ জনের জন্য ৫০% স্কলারশীপ ঘোষনা করেন সুমন দেববর্মা।

নড়াইল প্রতিনিধিঃ বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি বলেছেন, শেখ হাসিনার শুদ্ধি অভিযান চলছে , সাংবাদিকরা বলছে শুদ্ধি অভিযান স্মিথ হয়ে গেছে, স্মিথ হয়ে যায়নি, শুদ্ধি অভিযান চলছে, যারা অপকর্ম করছে তারা নজর দাড়িতে আছে, সময় মত ব্যাবস্থা করা হবে ,কাউকে ছাড় দেয়া হবে না—। প্রধান অতিথি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, এমপি আজ মঙ্গলবার নড়াইল সরকারি ভিক্টোরিয়া কলেজের সুলতান মে জেলা আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
সম্মেলন শেষে প্রধান অতিথি বর্তমান সভাপতি অ্যাডভোকেট সুবাস চন্দ্র বোস ও সাধারন সম্পাদক নিজাম উদ্দিন খান নিলুকে পুনরায় সভাপতি ও সাধারন সম্পাদক হিসাবে ঘোষনা করা হয় এবং যুগ্ম সম্পাদক পদে পৌর মেয়র মোঃ জাহাঙ্গির হোসেন বিশ্বাসের নাম ঘোষনা করা হয়।
এর আগে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলনের পর পায়রা ও বেলুন উড়িয়ে সম্মেলনের উদ্বোধন করেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভাপতি ম-লির সদস্য পিযুষ কান্তি ভট্টাচার্য।
জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট সুবাস চন্দ্র বোসের সভাপতিত্বে এবং সাধারন সম্পাদক নিজাম উদ্দিন খান নিলুর পরিচালনায় সম্মেলনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সম্পাদক মাহাবুব-উল -আলম হানিফ এমপি, যুগ্ম-সম্পাদক আব্দুর রহমান, শ্রম ও জনশক্তি বিষয়ত সম্পাদক হাবিবুর রহমান সিরাজ, সদস্য এস এম কামাল হোসেন, পরভীন জামান কল্পনা।
প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও হুইপ জাতীয় সংসদ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন এমপি।
বিশেষ বক্তা ছিলেন নড়াইল-১ আসনের সংসদ সদস্য কবিরুল হক মুক্তি, নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা, বাগেরহাট -২ আসনের সংসদ সদস্য শেখ তন্ময়।
এসময় আরো বক্তব্য রাখেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট সোহরাব হোসেন বিশ^াস, পৌরমেয়র জাহাঙ্গীর বিশ^াস প্রমূখ।
সম্মেলনের জেলার তিন উপজেলার সকল ইউনিয়ন ও তিনটি পৌরসভার কয়েক হাজার নেতা কর্মি উপস্থিত ছিলেন।

“সিসি ক্যামেরা বসিয়েও অনিয়ম রুখতে পারছি না অসন্তোষ প্রকাশ করে বললেন বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন এর” 

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের অসন্তোষ প্রকাশের একদিনের মাথায় সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের দুটি শাখার সব কর্মকর্তা ও কর্মচারীকে বদলি করা হলো। এ সংক্রান্ত এক অফিস আদেশ জারি করে তাদের হাইকোর্টের বিভিন্ন শাখায় বদলি করা হয়েছে বলে সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে।

মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্টের স্পেশাল অফিসার ব্যারিস্টার মোহাম্মদ সাইফুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে সংবাদ মাধ্যমকে  বলেন, অ্যাফিডেভিট ও ফাইলিং শাখার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বদলি করা হয়েছে।

আগে কখনও এভাবে একসঙ্গে এত কর্মকর্তা ও কর্মচারীর বদলির ঘটনা ঘটেনি।

এর আগে সোমবার একটি মামলার শুনানিকে কেন্দ্র করে অসন্তোষ প্রকাশ করে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন বলেন, সিসি ক্যামেরা বসালাম (এফিডেভিট শাখা কক্ষে), এখন সবাই বাইরে এসে এফিডেভিট করে। সিসি ক্যামেরা বসিয়েও অনিয়ম রুখতে পারছি না।

এ সময় আদালতে উপস্থিত থাকা অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম বলেন, অনেকেই মামলার তালিকা ওপর-নিচ করে কোটিপতি হয়ে গেছে। প্রধান বিচারপতি বলেন, রাষ্ট্রপক্ষের অনেক আইনজীবীও আদালতে আসেন না। বেতন বেশি হওয়ার কারণে এমন হচ্ছে। বেতন কম হলে তারা ঠিকই কষ্ট করে আদালতে আসতেন।

এরপর প্রধান বিচারপতি তাৎক্ষণিক এক আদেশে ডেপুটি রেজিস্ট্রার মেহেদী হাসানকে আপিল বিভাগে তলব করেন। তবে মামলার সিরিয়াল নিয়ে মেহেদী হাসানের ব্যাখ্যায় ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগ। পরে ডেপুটি রেজিস্ট্রারকে সঠিকভাবে দায়িত্ব পালনের নির্দেশ দেন প্রধান বিচারপতি।

সম্প্রতি আলোচিত বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যা মামলার পলাতক চার আসা‌মির সম্প‌ত্তি ক্রো‌কের নি‌র্দেশ দি‌য়ে‌ছেন বিজ্ঞ আদালত।

আজ মঙ্গলবার ঢাকার অতিরিক্ত মহানগর হাকিম কায়সারুল ইসলাম এ নির্দেশ দেন। এ সংক্রান্ত তামিল প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ৫ জানুয়ারি দিন ধার্য করেছেন আদালত।

পলাতক ৪ আসামি হলেন- মোর্শেদুজ্জামান জিসান, এহতেশামুল রাব্বি তানিম, মোর্শেদ অমত্য ইসলাম ও মোস্তবা রাফিদ।

এই চার আসামির গ্রেপ্তার-সংক্রান্ত তামিল প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আজ মঙ্গলবার দিন ধার্য ছিল। তবে তাদের গ্রেপ্তার করতে পারেনি বলে পুলিশ প্রতিবেদন দাখিল করলে মামলার পরবর্তী কার্যক্রম হিসেবে আসামিদের সম্পত্তি ক্রোকের পরোয়ানা জারি করেন আদালত।

আদালতের সংশ্লিষ্ট থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা মাজহারুল ইসলাম সাংবাদিকদের এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে ১৮ নভেম্বর চারজনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন ঢাকার অতিরিক্ত মহানগর হাকিম কায়সারুল ইসলাম। গ্রেপ্তার-সংক্রান্ত তামিল প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ৩ ডিসেম্বর দিন ধার্য করেছিলেন।

প্রসঙ্গত, বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যা মামলায় গত ১৩ নভেম্বর ডিবির পরিদর্শক ও মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ওয়াহিদুজ্জামান ২৫ জনকে অভিযুক্ত করে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন। ২৫ জনের মধ্যে এজাহারভুক্ত ১৯ জন এবং এর বাইরে তথ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে আরও ৬ জনের সম্পৃক্ততা পাওয়া যায়। অভিযোগপত্রে ৬০ জনকে সাক্ষী করা হয় এবং ২১টি আলামত ও ৮টি জব্দ তালিকা আদালতে জমা দেওয়া হয়েছে।

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার হাওরের বোরো ফসল রক্ষা বেড়ীবাঁধ বিষয়ে আলোচনা সভায় অনুষ্টিত হয়েছে। সোমবার দুপুরে উপজেলার পাবলিক লাইব্রেরীতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিজেন ব্যর্নাজীর সভাপতিত্বে প্রধান অথিতি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,সুনামগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন রতন,বিশেষ অথিতি হিসেবে উপস্তিত ছিলেন,তাহিরপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান করুনা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল,মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান খালেদা বেগম,রিয়াজ উদ্দিন খন্দকার লিটন,সহকারী ভূমি কমিশনার মুনতাসির হাসান পলাশ,তাহিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আতিকুর রহমান,তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আবুল হোসেন খান,সিনিয়র সহ সভাপতি আলী মর্তুজা,উপজেলা আ,লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম,যুবলীগ আহবায়ক হাফিজ উদ্দিন পলাশসহ তাহিরপুর উপজেলার ইউপি চেয়ারম্যান,মেম্বারসহ স্থানীয়গন্যমান্য ব্যক্তি ও কৃষকগন উপস্থিত ছিলেন।

এসময় সভায় বক্তারা বলেন,যাদের জমি আছে এবং প্রকৃত কৃষক তাদেরকে যেন কমিটিতে রাখা হয় এবং বাঁধ নির্মানের মত গুরুত্বপূর্ন দায়িত্ব দেওয়া হয়। গত কয়েক বছর নিন্মমানের বাঁধে কাজ করায় ও বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের পরিচয়ে যারা বাঁধ রক্ষার কাজ নিয়েছে তারা কোন কাজ করেনি অনিয়ম আর দূনীতি করেছে এই বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষকে সজাগ দৃষ্টি দেওয়ার আহবান জানানো হয়।

এবার কঠোর নজরধারী ও যে পিআইসি সঠিক ভাবে কাজ করবে না সাথে সাথেই তাকে দায়িত্ব থেকে অব্যহতিসহ তার বিরোদ্ধে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেবার জন্য হাওর পাড়ের কৃষকগন দাবী জানায়।

নড়াইল প্রতিনিধিঃ নড়াইলে টিসিবির তত্ত্বাবধানে খোলাবাজারে পিয়াজ বিক্রয়ের উদ্বোধন করলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সফল ওয়ানডে অধিনায়ক ও নড়াইল-২ আসনের এমপি মাশরাফী  বিন মর্ত্তুজা।

সোমবার দুপুরে জেলা প্রশাসকের চত্বরে জেলা প্রশাসনের আয়োজন এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়। এ সময় জেলা প্রশাসক আনজুমান আরা, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম(বার) .জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাডঃ সুবাস চন্দ্র বোস,অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক( সার্বিক) মোঃ ইয়ারুল ইসলামসহ অনেক উপস্থিত ছিলেন। টিসিবির ১জন ডিলারের মাধ্যমে মোট ৩ টন পিয়াজ বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে। ডিলারের মাধ্যমে ট্রাকে করে মাত্র ৪৫ টাকায় এ পেয়াজ বিক্রি করা হবে।

এ বিক্রয়ে যেন কোন অনিয়ম না সেদিকে জেলা প্রশাসনের সব সময় দৃষ্টি রাখার অনুরোধ জানান।

লোমহর্ষক ও নৃশংস নির্যাতনের বর্ণনা দিলেন সৌদি ফেরত মৌলভীবাজারের এই তরুণী

 

স্বপ্নের দেশ সৌদি আরব থেকে ফিরে নিজের ওপর ঘটে যাওয়া লোমহর্ষক নৃশংস নির্যাতনের বর্ণনা দিলেন মৌলভীবাজারের এক তরুণী। নির্যাতনের বর্ণনা দিতে গিয়ে মূর্ছা যান ওই তরুণী। মানসিকভাবেও অসুস্থ হয়ে পড়েছেন তিনি। মাঝে মাঝে আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে আবোল-তাবোল বকছেন। তার গোপনাঙ্গসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় নির্যাতনের চিহ্ন রয়েছে বলেও জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

কমলগঞ্জ উপজেলার সীমান্তবর্তী ৯ নম্বর ইসলামপুর ইউনিয়ন এলাকার ২০ বছর বয়সী ওই তরুণীর। গত ২৬ নভেম্বর সৌদি আরব থেকে দেশে ফেরার দুদিন পর শ্রীমঙ্গলের ‘মুক্তি মেডিকেয়ার’ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাকে। কিন্তু অর্থের অভাবে চিকিৎসা শেষ না করেই রবিবার তাকে বাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়।

ওই হাসপাতালের প্রধান সেবিকা দীপ্তি দত্ত গণমাধ্যমকে বলেন, ‘মেয়েটার যৌনাঙ্গসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় পোড়া ও আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ক্ষতগুলো সারতে সময় লাগবে।’

হাসপাতালের চিকিৎসক সাধন চন্দ্র ঘোষ বলেন, ‘মাঝে মাঝে আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে আবোল-তাবোল বকছিলো। দ্রুত তাকে মানসিক চিকিৎসা দেয়াও প্রয়োজন।’

মেয়েটির মা গণমাধ্যমকে জানান, সরকারের সহায়তায় গত ২৬ নভেম্বর দেশে ফিরিয়ে আনা হয় তার মেয়েকে। বাড়ি ফেরার পর নির্যাতনের বর্ণনা দিতে গিয়ে মূর্ছা যান ওই তরুণী। তখন তাকে শ্রীমঙ্গল মুক্তি মেডিকেয়ারে ভর্তি করা হয়।

মেয়েটির মা বলেন, ‘আমার ভালো মেয়ে বিদেশ থেকে এসেছে আধমরা হয়ে। টাকা রোজগারের আশায় গেল, অথচ একটি টাকাও ওকে দেওয়া হয়নি।’

মুক্তি মেডিকেয়ারে চিকিৎসাধীন ওই তরুণীর সঙ্গে রবিবার বিকালে গণমাধ্যম কর্মীদের কথা হয়। সেসময় সৌদি আরবে নির্যাতনের শিকার হওয়ার রোমহর্ষক বিবরণ দেন তিনি।

তিনি জানান, বিয়ের সাত মাসের মাথায় স্থানীয় আদম ব্যাপারী মোস্তফা কামালের প্রলোভনে চলতি বছরের ২৮ এপ্রিল সৌদি আরবে পাড়ি জমান ওই তরুণী। তাকে গৃহকর্মীর কাজ দেওয়ার কথা বলা হয়েছিল।

কিন্তু দাম্মামে পৌঁছানোর পর এক পর্যায়ে তিনি জানতে পারেন, চার লাখ টাকায় তাকে যৌনকর্মী হিসেবে বিক্রি করে দেওয়া হয়েছে। যৌনকর্মে রাজি না হলে তার ওপর চালানো হত নির্যাতন। একটি অফিসে রেখে প্রতিদিন কয়েকজন পালাক্রমে তাকে ধর্ষণ করত।

তরুণীর ভাষ্য, ‘জ্বলন্ত সিগারেট দিয়ে আমার বুক, গোপনাঙ্গ ও শরীরের বিভিন্ন জায়গা ওরা পুড়িয়ে দিয়েছে। তার দিয়ে বেঁধে পিটিয়ে হাত-পা ও উরুতে জখম করে দিয়েছে। দলবেঁধে ৪/৫ জন মিলে ধর্ষণ করত, তখন জ্ঞান হারিয়ে ফেলতাম।’

অসুস্থ হয়ে পড়ায় এক সময় সৌদি আরবের পুলিশ তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। সে সময় গোপনে তিনি আহত হওয়ার ছবি দেশে পাঠান।

তার দিনমজুর স্বামী নির্যাতনের বিষয়টি মোস্তফা নামের ‘আদম ব্যাপারীকে’ জানালে ‘মিথ্যা কথা’ বলে উড়িয়ে দেনে আদম বেপারী মোস্তফা ।

  

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc