হেফাজতের নামে মুসলমানদের ইমান নিয়ে প্রতারণার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণসহ ১১ দফা বাস্তবায়নের দাবি সুন্নী পীর-মাশায়েখ ঐক্যপরিষদের

    0
    6

    যুদ্ধাপরাধীদের দ্রুত বিচার ও হেফাজতের নামে মুসলমানদের ইমান নিয়ে প্রতারণা ও ফায়দা হাসিলকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণসহ ১১ দফা দাবি বাস্তবায়নের আহ্বান জানিয়েছে সুন্নী পীর-মাশায়েখ ঐক্যপরিষদ।

    সেই সঙ্গে ইসলাম ধর্ম ও মহানবী হযরত মুহাম্মদ (দ:)কে কটূক্তিকারীদের এবং ধর্মীয় রাজনীতির ছদ্মাবরণে নাস্তিক রাজনীতিবিদদের চিহ্নিত করে সর্বোচ্চ শাস্তি প্রদানের দাবি জানানো হয়েছে।

    পরিষদ তাদের ১১ দফা দাবি আগামী এক মাসের মধ্যে বাস্তবায়নে পদপে গ্রহণ না করা হলে আগামী ১২ মে পীর-মাশায়েখসহ নবীপ্রেমী জনতাকে নিয়ে দাবি আদায়ে সরকারকে বাধ্য করতে রাজপথে নেমে আসার ঘোষণা দিয়েছে।

    বুধবার জাতীয় প্রেসকাবের ভিআইপি লাউঞ্জে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব দাবি বাস্তবায়ন ও আন্দোলনের ঘোষণা দেন সুন্নী পীর-মাশায়েখ ঐক্যপরিষদ নেতারা। অনুষ্ঠানে লিখিত বক্তৃতা পাঠ করেন পরিষদের সদস্য সচিব মুফতি মাসুম বিল্লাহ নাফেয়ী। বক্তৃতা করেন পরিষদের আহ্বায়ক ড. খাজা বাকী বিল্লাহ মিশকাত চৌধুরী।

    সংবাদ সম্মেলনে আরো বক্তৃতা করেন সমন্বয়ক হাফেজ মওলানা আব্দুস সাত্তার, পীর তরিকত আল্লামা আবুল কাশেম রেজভী, খাজা আরেফুর রহমান তাহেরী, পীর তরিকত আল্লামা ইব্রাহীম খলিল ফরজী প্রমুখ।

    বক্তারা বলেন, ইসলামের নামে এ পর্যন্ত যত হত্যা, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদী কার্যক্রম এবং মহানবী (দ:) ও সাহাবায়ে কিরামদের নিয়ে বিভ্রান্তিমূলক বক্তব্য যারা প্রকাশ করেছে ও করছে, তারাই ওহাবি-খারেজি ও জামায়াত-শিবিরের সঙ্গে সম্পৃক্ত।

    তারা বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তি ও তাদের দোসরদের চিহ্নিত করতে গেলে এদের নামই বেরিয়ে আসবে। তাই তারা একদিকে ইসলামের শত্রু, অপরদিকে দেশেরও শত্রু।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here