শ্রীমঙ্গল ১নং মির্জাপুর ইউপি নির্বাচনে কে হচ্ছেন চেয়ারম্যান?

    0
    99

    নিজস্ব প্রতিনিধিঃ শেষ পর্যায়ে জোরেশোরে চলছে ইউনিয়নের উপ নির্বাচনের প্রচারণা।মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গল উপজেলার ১ নং মির্জাপুর ইউনিয়ন ও ২ নং ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান যথাক্রমে আবু সুফিয়ান চৌধুরী ও চেরাগ আলীর মৃত্যুতে নির্ধারিত সময়ে সরকার কর্তৃক ঘোষিত উপনির্বাচনের প্রার্থী যাচাই-বাছাই করার পর প্রতীক দেওয়ার পর থেকে শুরু হয়েছে ইউনিয়ন দুটিতে ব্যাপক প্রচারণা।

    সরেজমিনে ইউনিয়ন দুটি ঘুরে দেখা যায় প্রার্থীরা পথসভা, উঠান বৈঠক ও ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ভোট প্রার্থনায় ব্যস্ত রয়েছেন। সমর্থকরাও নিজ নিজ প্রার্থীদের প্রচার-প্রচারণা করে চলেছেন। তবে মির্জাপুর ইউনিয়ন থেকে ভূনবীর ইউনিয়নের নির্বাচনী প্রচারণা বেশ জোরেশোরে চলছে। বৃহস্পতিবার বিকাল থেকে সন্ধ্যা ৮ টা পর্যন্ত বিভিন্ন প্রার্থীদের প্রচার-প্রচারণা লক্ষ করা যায়। এখন ভোটারদের প্রশ্ন শ্রীমঙ্গের ১ নং মির্জাপুর ইউপির উপ নির্বাচনে কে হচ্ছেন নতুন চেয়ারম্যান ?

    ১নং মির্জাপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকা সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, গ্রামের বিভিন্ন রাস্তায় সিএনজি যোগে মাইক দিয়ে গান বাজিয়ে,গ্রাম্য বাজারে খণ্ড খণ্ড মিছিলের মাধ্যমে ভোটারদের মন জয় করার চেষ্টা করছে প্রার্থীরা।  সাবেক মেম্বার বর্তমান চেয়ারম্যান প্রার্থী বিএনপির দলীয় প্রার্থী ধানের শীষ মার্কা নিয়ে প্রতিপক্ষ সরকারী দল আওয়ামীলীগের নৌকা প্রতীকের প্রার্থী অপুর্ব চন্দ্র দেবের সাথে প্রতিদন্ধিতা করছেন।

    বিএনপির দলীয় প্রার্থী চেয়ারম্যান প্রার্থী সুফি মিয়া ধানের শীষ মার্কা নিয়ে বৈঠকের প্রাক্ষালে তোলা ছবি।

    নির্বাচনের পরিস্থিতি নিয়ে মোঃ সুফি মিয়ার সাথে কথা হয় এ প্রতিনিধির। বৃহস্পতিবার বিকেল বেলায় তাকে ফোন দিলে পরিচয় জানতে চান একপর্যায়ে পরিচয় দেওয়ার পর তিনি প্রথমে কিছুটা অনীহা দেখালেও একসময় নিজেই মির্জাপুর বাজারে চলে আসেন এবং তার সাথে কথা হয়। কথা প্রসঙ্গে তিনি বলেন আমি অতীতেও জনসেবা করেছি এবং এখনও জনসেবা করার উদ্দেশ্যেই নির্বাচনে দাঁড়িয়েছি আমার তেমন অর্থকরী নেই, তাছাড়া নির্বাচনে অতিরিক্ত পয়সা খরচা করার ইচ্ছাও নেই, পয়সা খরচ করলে পয়সা তুলতে হবে। নির্বাচনে কোনো বাধা-বিপত্তি সরাসরি নেই প্রচার-প্রসারের কোন সমস্যা হচ্ছে না, আমি আশা করি জনগণ আমাকে মায়া করবে এবং আমি নির্বাচনে জয়ী হব ইনশাল্লাহ, এ ইউনিয়নের হিন্দু-মুসলিম আমরা সবই এক আমরা একে অপরের বিপদে এগিয়ে যাই আমাদের সম্পর্ক ভালো, ধর্মের কারণে আমাদের মধ্যে কোন ভেদাভেদ নাই।আমরা সবাই মির্জাপুর বাসি এটাই আমাদের পরিচয়।যদি এলাকাবাসী আমাকে ভোট দিয়ে সেবা করার সুযোগ দেন তাহলে আমি মির্জাপুরকে একটি দুর্নীতি মুক্ত ইউনিয়ন হিসেবে উদাহরণ তৈরি করতে চাই।

    অপরদিকে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করছেন অপূর্ব দেব যদি ও ওনাকে কয়েকবার ফোন করা হয়েছে তিনি রিসিভ না করায় তার সাথে সাক্ষাৎ করা সম্ভব হয়নি।

    অপরদিকে স্থানীয় ভোটারদের সাথে কথা হলে,তাদের অনেকেই প্রত্যাশা করেন যিনি নির্বাচিত হবেন তিনি যেন এলাকায় আইন শৃঙ্খলা বজায় রাখতে চেষ্টা করেন এবং নির্বাচনে যেন কোন প্রকার কারচুপি না হয়।তবে ইউপির উপ নির্বাচনে কে হচ্ছেন চেয়ারম্যান ? তার জন্য আমাদের আরও তিন টি দিন অপেক্ষা করতে হবে।

    উল্লেখ্য,ইতিমধ্যে শ্রীমঙ্গল উপজেলা কর্মকর্তা মোঃ নজরুল ইসলাম,সিনিয়র এএসপি আশরাফুজ্জামান ও থানার ওসি আব্দুস ছালেকসহ প্রশাসনের স্থানীয় কর্মকর্তারা নির্বাচন নিরপেক্ষতার প্রয়োজনে সকল প্রকার আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন। চলতি অক্টোবর মাসের ২০ তারিখে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।