আইনজীবি সহকারীদের কর্মবিরতি ও মানববন্ধন

    0
    9

    আমারসিলেট 24ডটকম ,২৬সেপ্টেম্বর ,শাব্বির এলাহী :মৌলভীবাজারে আইন পাশ করে পেশাগত স্বীকৃতি প্রদানের দাবীতে আইনজীবি সহকারীদের কর্মবিরতি ও মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়েছে আজ  বৃহষ্পতিবার সকাল ১০টায় বাংলাদেশ আইনজীবি সহকারী সমিতি মৌলভীবাজার জেলা শাখার সভাপতি মোঃ মাসুকুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মোঃ রয়েল হোসেনের নেতৃত্বে এবং সাংগঠনিক সম্পাদক অমৃত বৈদ্যের পরিচালনায় কর্মবিরতি শুরু হয়ে মৌলভীবাজার প্রেসক্লাবের সম্মুখে মানববন্ধন পালনের মাধ্যমে দুপুর সাড়ে ১২টায় কর্মসূচী সমাপ্ত হয়।  এ সময় কর্মবিরতি ও মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন- মোঃ আলী মনসুর, মোঃ মকবুল আলী, কন্দর্প মোহন পাল, শাহ আহমদ আলী, মোঃ আব্দুল মছব্বির, পুতুল সূত্রধর, মোঃ ছনাওর মিয়া, মোঃ মুকিত মিয়া, বীরেন্দ্র দাশ প্রমুখ।

    বক্তারা বলেন- স্বতন্ত্র আইন প্রণয়নের মাধ্যমে দেশের প্রায় প্রতিটি পেশাজীবি মানুষের পেশাগত স্বকীয়তা ও স্বীকৃতি নিশ্চিত করা হলেও,  অদ্যাবধি আইনজীবি সহকারীদের জন্য পেশাগত কাজের বর্ণনা সহকারে কোন আইন প্রণয়ন করা হয়নি। তাই, ১৯৮৬ সালে এক মহা সম্মেলনের মাধ্যমে এ দাবী উত্থাপিত হলে বার সমিতিসহ সর্বমহলের সমর্থনের প্রেক্ষিতে ১৯৮৭ সালে তৎকালীন এ্যাটর্নি জেনারেল এবং ১৯৯১ সালে আইন সংস্কার কমিশন এ সংক্রান্ত আইনের খসড়া প্রণয়ন করে। ১৯৯৩ সালে তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেত্রী শেখ হাসিনা এ দাবীর প্রতি সমর্থন জানান এবং ক্ষমতাসীন হলে তা পাশের অঙ্গীকার করেন। ২০০৩ সালে আইন সংস্কার কমিশন আবারও এ সংক্রান্ত আইনের খসড়া প্রণয়ন করে।

    বিগত সরকারের আমলে পূর্বেকার খসড়াটি বিল আকারে রূপান্তর এবং তা পাশের ব্যাপারে সুপ্রিম কোর্ট বার এসোসিয়েশন ও বার কাউন্সিলের মতামত চাওয়া হলে সুপ্রিম কোর্ট বার এসোসিয়েশন তা পাশের পক্ষে মতামত দিয়ে বার কাউন্সিলে প্রেরণ করে। ২০০৬ সালে বার কাউন্সিল কতিপয় সংশোধনী সাপেক্ষে আইনটি পাশের পক্ষে লিখিত মতামত মন্ত্রণালয়ে পেশ করে। পরবর্তীতে মন্ত্রণালয়ের চাহিদা মোতাবেক ২০১০ সালে বার কাউন্সিল আইনটি পাশের পক্ষে মতামত পুনরায় মন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করে। ২০১২ সালে কুমিললা ও সিলেটের বিভাগীয় সম্মেলনে প্রধান অতিথি আইন প্রতিমন্ত্রী এডঃ কামরুল ইসলাম বিগত শীতকালীন অধিবেশনে আইনটি পাশের পক্ষে মত প্রকাশ করেন। কিন্তু, অদ্যাবধি আইনটি পাশ না হওয়ায় আইনজীবি সহকারীগণ উক্ত আইনটি পাশের পক্ষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করছেন।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here