বেনাপোল কাস্টম হাউসের যুগ্ম-কমিশনারে’র উপর হামলা

    0
    4

    প্রতিবাদে কাস্টমস ও বন্দরে সকল প্রকার র্কাযক্রম বন্ধ

    আমারসিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,১৭ফেব্রুয়ারী,এম ওসমান, বেনাপোল: বেনাপোল কাস্টমস হাউসের যুগ্ম-কমিশনার মোস্তাফিজুর রহমান ও সহকারি কমিশনার নিতিশ চন্দ্র বিশ্বাসের উপর হামলার ঘটনায় বুধবার দুপুর ১২ টার পর থেকে সকল প্রকার কাজ বন্ধের ঘোষনা দিয়েছে কাস্টমস কর্তৃপক্ষ। যুগ্ম-কমিশনার মোস্তাফিজুর রহমানের অফিসের সামনে সকাল সাড়ে ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। হামলার প্রতিবাদে কাস্টমসের সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারিরা তাৎক্ষনিক ভাবে কাস্টমস ও বন্দরের কাজকর্ম বন্ধ করে দিয়ে কালো ব্যাজ ধারন, বিক্ষোভ মিছিল, প্রতিবাদ সভা ও মানব বন্ধন করেছেন।

    বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, বেনাপোল কাস্টমস হাউজের রাজস্ব কর্মকর্তা নজরুল ইসলাম। তারা সন্ধ্যা ৬টার মধ্যে হামলকারিদের গ্রেফতার করে শাস্তি মুলক ব্যবস্থা না নিলে বৃহষ্পতিবার সকাল থেকে অনির্দিস্টকালের জন্য কাজ বন্ধ করার ঘোষনা দেন। বর্তমানে কাস্টমস হাউজে উত্তেজনা বিরাজ করছে। কাস্টমস হাউজে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে ।

    বেনাপোল কাস্টমসের পরিদর্শক রাকিবুল ইসলাম জানান, কাস্টমসে নিলাম আহবান করা হলেই স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা প্রভাব খাটিয়ে তা হাতিয়ে নিতে চান। কিন্তু তাতে রাজি না হওয়ায় ক্ষিপ্ত ছিলেন ছাত্রলীগ নেতা কর্মীরা। বুধবার দুপুর ১২ টার দিকে ১০/১৫ জনের একটি গ্রুপ যুগ্ম- কমিশনার মোস্তাফিজুর রহমানের সাথে দেখা করতে গিয়ে বাকবিতন্ডায় জড়িয়ে পড়ে। এক পর্যায়ে যুগ্ম-কমিশনার তাদের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় তার উপর হামলা করা হয়। এসময় সহকারি কমিশনার নিতীশ চন্দ্র তাদের বাধা দিতে গেলে তার ওপরও হামলার ঘটনা ঘটে। হামলার প্রতিবাদে তাৎক্ষনিক কাস্টমস ও বন্দরের সব ধরনের কাজকর্ম বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। সারাদিন কাস্টমস হাউজে কোন কাজ হয়নি। বন্দরে থেকে সব ধরনের মালামাল খালাস বন্ধ ছিল।

    বেনাপোল কাস্টমস কমিশনার এএফএম আব্দুল্লাহ খান জানান, বহিরাগত এক দল দুর্বৃত্ত এ ঘটনা ঘটিয়েছে। আমাদের সকল কাজ বন্ধ ছিল। ভিডিও ফুটেজে হামলাকারীদের সনাক্ত করে থানায় মামলা করার প্রস্তুতি চলছে। সরকারি রাজস্ব আহরনের ব্যাপারে সবাইকে নিয়ে জরুরী সভা করে কাজ করার পরিবেশ ফিরিয়ে আনার চেষ্টা চলছে।

    এ বিষয়ে ছাত্রলীগ নেতারা দাবি করে বলেন, তিনি বৈধ নিয়মে টেন্ডার কাজের সাথে জড়িত। তার একটি পেÑঅর্ডার গত ৩ মাস ধরে কাস্টমস কর্মকর্তা আটকে রেখে হয়রানি করছে। পরে কথা শেষে সিঁড়ি দিয়ে নামার সময় কাস্টমস যুগ্ন-কমিশনার মোস্তাফিজুর রহমানের সাথে তার ধাক্কা লাগে। এসময় কাস্টমস কর্মকর্তা তার সঙ্গে খারাপ আচারণ করে এবং কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে তাকে ধাক্কা মারে। এতে তার সাথে থাকা অন্যান্য নেতা কর্মিরাও ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে ধাক্কাÑধাক্কি করে।

    বেনাপোল পোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অপুর্ব হাসান জানান, বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। কাস্টমস হাউসে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বর্তমানে বেনাপোল বন্দরে সব ধরনের আমদানি রফতানি বানিজ্য বন্ধ রয়েছে। বন্দরের অভ্যন্তরে মালামাল বোঝাই ট্রাক আটকে আছে। কাস্টমস কর্তৃপক্ষ থানায় মামলা করলে আমরা আইনগত ব্যবস্থা নিবো।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here