নিকোলাস মাদুরো ভেনিজুয়েলার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত

    0
    3

    এটি একটি ন্যায়, আইনগত সাংবিধানিক বিজয় : নিকোলাস মাদুরো 

    নিকোলাস মাদুরো ভেনিজুয়েলার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত
    নিকোলাস মাদুরো ভেনিজুয়েলার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত

    উগো চাভেজের মৃত্যুর পর থেকে ভারপ্রাপ্ত প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন নিকোলাস মাদুরো।

    রোববারের নির্বাচনে তিনি ৫০ দশমিক ৭ শতাংশ ভোট পেয়ে দেশটির নতুন প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন। অপরদিকে হেনরিক ক্যাপরিলেস ৪৯ দশমিক ১ শতাংশ ভোট পেয়েছেন।

    আগামী ১৯শে এপ্রিল নতুন প্রেসিডেন্টের শপথ নেয়ার কথা রয়েছে। তিনি ২০১৯ সালের জানুয়ারি পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করবেন।

    ফল ঘোষনার পর সমর্থকদের উদ্দেশ্যে দেয়া এক ভাষনে মি. মাদুরো যারা তাকে ভোট দেননি তাদেরও একযোগে কাজ করার আহবান জানিয়েছেন।

    তিনি বলেন তিনি মি. ক্যাপরিলেসের সাথে কথা বলেছেন এবং নির্বাচনের ফল নিরীক্ষায় তার কোন আপত্তি নেই।

    রাজধানী কারাকাসে সমর্থকদের উদ্দেশ্যে নিকোলাস মাদুরো বলেন, এটি একটি ন্যায়, আইনগত ও সাংবিধানিক বিজয়।

    এর আগে রোববার অনুষ্ঠিত এ নির্বাচনে দেশটির প্রেসিডেন্ট উগো চাভেজের উত্তরসূরি নির্বাচনে লক্ষ লক্ষ ভোটার নির্বাচনে অংশ নেন। ভেনিজুয়েলার নির্বাচন কর্তৃপক্ষ বলছে নির্বাচন শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন হয়েছে।

    নির্বাচনে জিতলে নিকোলাস মাদুরো প্রয়াত প্রেসিডেন্ট চাভেজের অনুসৃত নীতি অনুসরণ করার ঘোষণা দিয়েছেন।

    মি. ক্যাপরিলস মিরান্দা রাজ্যের গভর্নর এবং তিনি গত অক্টোবরে মি. চাভেজের কাছে অল্প ভোটে হারেন।

    কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে অনুষ্ঠিত এই ভোট গ্রহণ শান্তিপূর্ণভাবেই শেষ হয়েছে।

    দেশটির রাজধানী কারাকাসে কয়েকজন ভোটার বলছিলেন, আমি আশা করবো বেশ ভালভাবেই ভোট শেষ হবে এবং মানুষ ঐকমত্যে পৌঁছাবে। যে ই জয়ী হোক গণতন্ত্রকে এগিয়ে নিয়ে যাবে বলে আমার বিশ্বাস।‌

    আরেকজন ভোটার বলছেন, আমার আশা দেশের অবস্থা ভাল হবে। দেশের জন্য সবারই উচিত হবে ঐক্যবদ্ধভাবে সাধারণ মানুষের উপকারে কাজ করা।‌

    নির্বাচন পর্যবেক্ষকরা বলছেন নির্বাচনে ভোট গ্রহণ আগের তুলনায় বেশ ভালভাবেই সম্পন্ন হয়েছে। ইউনিয়ন অব সাউথ আমেরিকান নেশন্স এর একজন পর্যবেক্ষক কার্লোস আলভারেজ বলছেন, সব কিছুই স্বাভাবিক আছে। যে প্রক্রিয়ায় ভোট গ্রহণ হয়েছে তাতে সাধারণ মানুষ বেশ স্বাচ্ছন্দ্যে এবং দ্রুত ভোট দিতে পেরেছে। ফলে গত নির্বাচনে যেমন লম্বা সারি দেখা গেছে এবারে তা হয়নি।‌

    ওদিকে কিছু হ্যাকার বলছে নির্বাচনের ভোটগ্রহন শেষ হবার আগে মি মাদুরোর টুইটার একাউন্ট হ্যাক করেছে। তার নির্বাচনী প্রচারণার দুটি ওয়েবসাইটও হ্যাকারদের আক্রমণের লক্ষ্যে পরিণত হয়।

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here