Friday 2nd of October 2020 12:35:44 AM
Sunday 6th of September 2015 01:41:21 PM

চুনারুঘাটে দলিল লিখক দানিছ মিয়ার বিরুদ্ধে ভূয়া নামে খাজনা আদায়সহ নানা অভিযোগ

নাগরিক সাংবাদিকতা ডেস্ক
আমার সিলেট ২৪.কম
চুনারুঘাটে দলিল লিখক দানিছ মিয়ার বিরুদ্ধে ভূয়া নামে খাজনা আদায়সহ নানা অভিযোগ

আমারসিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,৬সেপ্টেম্বর,এস এম সুলতানঃ চুনারুঘাট উপজেলা সাব-রেজিষ্টারী অফিসের নিববন্ধিত দলিল লেখক দানিছ মিয়া (সনদ নং ২০) এর বিরুদ্ধে দলিল লিখায় অনিয়ম শ্রেণী পরিবর্তন, ওয়াকফ্ ষ্টেটের জমির কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া খাজনা আদায়সহ বিভিন্ন অভিযোগ পাওয়া গেছে। সে উপজেলার মিরাসী ইউনিয়নের মিরাশী গ্রামের মৃত আতিক উল্লার ছেলে। গত মঙ্গলবার জেলা রেজিষ্টার এর বরাবর ২২ জন দলিল লেখক স্বাক্ষরিত রাজস্ব আয় থেকে বি ত একটি দরখাস্ত দায়ের করেন।

এতে উল্লেখ্য রয়েছে দানিছ মিয়া, বিগত ১০ জুন ২০১৪ইং ৩২৪২ নং দলিল মোয়াজী ১৮ শতক সাইল রকম ভূমি হিসেবে ১৪ হাজার টাকার মূল্যে ও ২৩ জুন ১৪ইং ৩৪৭৩ নং দলিল মোয়াজী ১৮ শতক সাইল ভূমি হিসেবে ৮ হাজার টাকার মূল্যের হেবা দলিল এওয়াজ দলিল রেজিষ্টারী করেন। কিন্ত দুটি দলিলের ভূমি একই দাগের। তিনি দলিলে সাইল হিসেবে উল্লেখ্য করে রেজিষ্টারী করেন। প্রকৃত অর্থে এসএ রের্কড অনুযায়ী ঐ ভূমির শ্রেনী আমন। যাহা সরকারের ৯ লক্ষ ১৪হাজার টাকার মূল্যের  সরকারী রাজস্ব ৮% হিসেবে ৭৩ হাজার টাকা সরকারে রাজস্ব আয় ফাকি দিয়ে নিজেই আত্মসাত করেন।

শুধু এটাই নয় এসএ রেকর্ড অনুযায়ী চুনারুঘাট উপজেলার ১৩০ নং জে.এল স্থিত মুছিকান্দি মৌজার ১২৫ নং এস.এ খতিয়ান ২০০ নং দাগে মৌজা ১.১১একর শতক ভুমির শ্রেণী আমন রেকর্ড রেকর্ডয়ী মালিক আব্বাস আলী ওয়ার্কফ ষ্টেটের মোতায়াল্লী জৈনক মোঃ রফিকুন নবী চৌধুরী।

এ অনুযায়ী ঐ ভূমি ওয়াকফ ষ্টেটের অধীনে কর্তৃপক্ষ অনুমতি ছাড়াই খাজনা আদায়সহ সর্বপ্রকার রেজিষ্টারী করার নিয়ম নেই। কিন্তি তিনি কোন প্রকার সরকারি নিয়মনীতি তোয়ক্কা না করেই নামধারী প্রতারক সভাপতি দানিছ মিয়ার ক্ষমতা বলে নিজেই পর্চা তৈরী করে ওয়াকফ ষ্টেট লেখা পরিবর্তন করে শুধু একজন মালিকের নাম লিখে ভূমির শ্রেণী পরিবর্তন করে দলিল রেজিষ্টারী করেন। যাহা আইন গত কঠোর শাস্তি ও দন্ডনীয় অপরাধ। তাহার দীর্ঘ জীবনে বহু জালিয়াতি দলিল করে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়েছেন।

তিনি অবৈধ পন্থা অবলম্বন করে দলিল লেখা চালিয়ে যাওয়ার জন্য উক্ত সাব-রেজিষ্টারী অফিসে ভূয়া জন্ম তারিখে আইড কার্ড করেছেন। তাহার প্রকৃত আইডি নং ৩৬২০৯১৯৫৬৯৯৭ জন্ম তারিখ ১০ ফেব্রুয়ারী ১৯৪৭ইং। সে বিভন্নভাবে দলিল রেজিষ্টারী করে সরকারের হাজার হাজার টাকা রাহস্ব আয় ফাকি দিয়ে আসছে। উক্ত বিষয়টি তদন্ত করে চুনারুঘাটবাসীকে ও দলিল লেখকবৃন্দ এই প্রতারক দলিল লেখকের হাত রক্ষা করার দাবী জানান।


সম্পাদনা: News Desk, নিউজরুম এডিটর

আমারসিলেট২৪.কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Place for advertisement
Place for advertisement

সর্বশেষ সংবাদ


সর্বাধিক পঠিত

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc