কমলগঞ্জে বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের হামলায় এমপির সহকারীসহ আহত-১০ আটক-২

0
44
বোনের ছেলেকে কিডনি দানের গল্প সিনেমাকে ও হার মানিয়েছে!
আহত ইমাম হোসেন সোহেল ও খালেদ হোসেন সাইফুল্লাহঃ হাসপাতাল থেকে

কমলগঞ্জ(মৌলভীবাজার) প্রতিনিধিঃ মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে আওয়ামীলীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থীর প্রধান নির্বাচনী কার্য্যালয় ও স্থানীয় সংসদ সদস্য উপাধ্যক্ষ আব্দুস শহীদের গাড়ি বহরে হামলা চালিয়েছেন বহিষ্কৃত উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বিদ্রোহী প্রার্থী জুনেল আহমদ ও তার সমর্থকরা।

এমপি অক্ষত অবস্থায় থাকলেও দুই পক্ষের সংঘর্ষে এমপির গানম্যান, গাড়ির চালক ও ব্যক্তিগত সহকারী এবং খালেদ সাইফউল্লাহ্‌ নামের একজনসহ মোট ১০ জন আহত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

রবিবার (২ জানুয়ারী ২০২২) রাত সাড়ে ৯টায় রহিমপুর ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান ইফতেখার আহমদ বদরুলের প্রধান নির্বাচনী কার্য্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে।পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে এমপিকে নিরাপদে সরিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গুরুতর আহত দুজনকে সিলেট মাউন্ট এডোরা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

এ ঘটনায় এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। পুলিশ দু’জনকে আটক করেছে বলে জানা যায়।

সোমবার ৩ জানুয়ারি দুপুরে সরজমিন খোঁজ নিয়ে জানা যায়, স্থানীয় সাংসদ সাবেক চিফ হুইপ উপাধ্যক্ষ মো. আব্দুস শহীদ এমপি গাড়ি বহর নিয়ে মুন্সিবাজার এলাকায় নৌকা প্রার্থী ইফতেখার আহমদ বদরুল এর নির্বাচনী কার্যালয়ে সামনে পৌঁছালে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী রহিমপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি জুনেল আহমদ তরফদার (ঘোড়া প্রতীক) এর সমর্থকরা মোবাইল ফোন দিয়ে ছবি উঠাতে থাকে।

এ নিয়ে উভয়পক্ষের মধ্যে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে সংঘর্ষ শুরু হয়,এতে স্থানীয় সাংসদের ব্যক্তিগত এপিএস ইমাম হোসেন সোহেল, গানম্যান তরিকুল ইসলামসহ অন্তত ১০ জন আহত হন।

পুলিশ এমপি আব্দুস শহীদকে নিরাপদে সরিয়ে নেয়। গুরুতর আহতরা মৌলভীবাজার সদর হাসপাতাল ও সিলেট মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

এদিকে ঘটনার পর বিদ্রোহী প্রার্থী ও সমর্থকরা বাজার এলাকা থেকে সরে যান। তবে স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকরাও আহত হয়েছেন বলে দাবি করেছেন বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী জুনেল আহমদ তরফদার।

স্থানীয় সংসদ সদস্য উপাধ্যক্ষ ড আব্দুস শহীদ এমপির সঙ্গে কথা বলার চেষ্টা করলে মোবাইল ফোনে সংযোগ পাওয়া যায়নি। এ ঘটনায় সোমবার সকালে এমপি আব্দুস শহীদের ছোট ভাই ইমতিয়াজ আহমেদ বুলবুল বাদী হয়ে কমলগঞ্জ থানায় ৩৫জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও ৩০/৩৫ জনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

কমলগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) সোহেল রানা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এমপি সাহেব যাওয়ার সময় তার গাড়িতে হামলা করা হয়। তিনি অক্ষত আছেন। তার গানম্যান ও গাড়িচালক আহত। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে।

পূর্বের সংবাদের লিঙ্কটি দেখুন- http://www.amarsylhet24.com/%e0%a6%95%e0%a6%ae%e0%a6%b2%e0%a6%97%e0%a6%9e%e0%a7%8d%e0%a6%9c%e0%a7%87-%e0%a6%b0%e0%a6%b9%e0%a6%bf%e0%a6%ae%e0%a6%aa%e0%a7%81%e0%a6%b0-%e0%a6%87%e0%a6%89%e0%a6%a8%e0%a6%bf%e0%a6%af%e0%a6%bc%e0%a6%a8/

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here