এবার খাজা গরীব নওয়াজ (রহঃ) মাজারকে মন্দির বলে দাবি ‘মহারানা প্রতাপ সেনার’

0
45
এবার খাজা গরীব নওয়াজ (রহঃ) মাজারকে মন্দির বলে দাবি ‘মহারানা প্রতাপ সেনার’
ভারতে ইসলামিক নিদর্শন খাজা গরীব নওয়াজ (রহঃ) মাজার।

ভারতের রাজস্থানের আজমীরে হযরত খাজা গরীব নওয়াজ (রহঃ) মাজারকে এবার প্রাচীন হিন্দু মন্দির বলে দাবি করেছে ‘মহারানা প্রতাপ সেনা’। সংগঠনটি রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলট, কেন্দ্রীয় সরকার এবং অন্যদেরকে একটি চিঠি লিখে ওই বিষয়ে তদন্ত করতে বলেছে।

‘মহারানা প্রতাপ সেনা’র কর্মকর্তারা একটি ছবি পাঠিয়ে আজমীর শরীফ দরগাহের  জানালায় স্বস্তিক চিহ্ন রয়েছে বলে দাবি করেছেন। ‘মহারানা প্রতাপ সেনা’র প্রতিষ্ঠাতা রাজবর্ধন সিং পারমারের দাবি, আজমীরের হযরত খাজা গরীব নওয়াজ দরগাহে একটি একলিঙ্গ মন্দির ছিল যেটিকে দরগায় রূপান্তরিত করা হয়েছিল। রাজবর্ধন সিং পারমার বলেছেন,  দরগাহে স্বস্তিকার কাজ কী? এটি তদন্তের বিষয়। আমরা বিষয়টি তুলে ধরেছি। সরকারের উচিত তদন্ত করা। ইরনা

গণমাধ্যমে প্রকাশ, ‘মহারানা প্রতাপ সেনা’ ভারতের রাষ্ট্রপতি, রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী,  রাজ্যপাল ও অন্যত্র চিঠি দিয়েছে। মহারানা প্রতাপ সেনার জাতীয় সভাপতি রাজবর্ধন সিং পারমার বলেছেন, এক সপ্তাহের মধ্যে তদন্ত না হলে তিনি কেন্দ্রীয় মন্ত্রীদের সঙ্গে দেখা করবেন। এরপরও কোনো সমাধান না হলে বৃহত্তর আন্দোলন করা হবে। ‘মহারানা প্রতাপ সেনা’র ২০০০ কর্মী আজমীরে যাবে এবং ওই ইস্যুতে আন্দোলন করবে। এ ছাড়াও তারা আদালতের দ্বারস্থও হতে পারে।     

এর আগে ভারতে জ্ঞানবাপী মসজিদ, কুতুব মিনার ও তাজমহলসহ বিভিন্ন প্রাচীন সৌধকে কেন্দ্র করে হিন্দুত্ববাদীদের বিতর্কিত দাবির মধ্যে এবার আজমীরের হযরত খাজা গরীব নওয়াজ মাজার নিয়ে নয়া বিতর্কের সূচনা হয়েছে। মহারানা প্রতাপ সেনার প্রতিষ্ঠাতা রাজবর্ধন সিং পারমার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে এ সংক্রান্ত পোস্ট করে বিতর্কিত প্রশ্ন তুলেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here