Saturday 26th of September 2020 11:23:11 AM
Monday 7th of October 2013 11:23:27 AM

ঈদ ও দুর্গা পুজায় বোনাসের দাবিতে হোটেল শ্রমিকইউনিয়নের স্মারকলিপি

নাগরিক সাংবাদিকতা ডেস্ক
আমার সিলেট ২৪.কম
ঈদ ও দুর্গা পুজায় বোনাসের দাবিতে হোটেল শ্রমিকইউনিয়নের স্মারকলিপি

আমারসিলেট 24ডটকম,০৭অক্টোবর:সরকার ঘোষিত গেজেট অনুযায়ী আসন্ন ঈদুল আজহা ও দুর্গা পুজায় হোটেল শ্রমিকদের বোনাসের দাবিতে জেলা প্রশাসক বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করেছে মৌলভীবাজার জেলা হোটেল শ্রমিক ইউনিয়ন রেজি: নং চট্ট: ২৩০৫। হোটেল শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক এখলাছুর রহমান সোহেল স্বাক্ষরিত স্মারলিপিটি ১ অক্টোবর দুপুরে মৌলভীবাজারের জেলা প্রশাসক মোঃ কামরুল ইসলামের দপ্তরে পেশ করেন হোটেল শ্রমিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ। স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয় মুসলমানদের অন্যতম বৃহৎ ধর্মীয় উৎসব ঈদুল আজহা ও হিন্দুদের সর্ব বৃহৎ ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গা পুজা আসন্ন।

এই ধর্মীয় উৎসব সকল শ্রেণী পেশার জনগণের নিকট আনন্দের বার্তা নিয়ে আসলেও হোটেল শ্রমিকদের সব সময় এই আনন্দ থেকে বঞ্চিত করা হয়। কারণ ঈদ ও পুজায় হোটেল শ্রমিকরা কোন উৎসব বোনাস পান না, এমন কি অধিকাংশ হোটেল শ্রমিকদের ঈদ ও পুজায় কোন ছুটিও প্রদান করা হয় না। আর যে সকল শ্রমিকদের ছুটি দেওয়া হয় তাদের ছুটির দিনের বেতনও দেওয়া হয় না। ২০০৯ সালের ২৪ নভেম্বর সরকার হোটেল শ্রমিকদের জন্য নিন্মতম মজুরীর গেজেট প্রকাশ করেন, ঘোষিত গেজেট অনুযায়ী প্রত্যেক শ্রমিককে এক মাসের বেতনের সমপরিমান বছরে ২টি উৎসব বোনাস প্রদানের আইন করা করা হয়। এরপর ২০১২ সালের ২৬ এপ্রিল সরকার ঘোষিত গেজেট ও শ্রম আইন বাস্তবায়নের প্রেক্ষিতে বাংলাদেশ রেঁস্তোরা মালিক সমিতি ও বাংলাদেশ হোটেল রেস্টুরেন্ট সুইটমিট শ্রমিক ফেডারেশনের মধ্যে লিখিত চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। অথচ হোটেল মালিকরা সরকারী আইন ও চুক্তি লঙ্ঘন করে সম্পূর্ণ বেআইনীভাবে এই সকল কর্মকান্ড চালালেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ এব্যাপারে নির্বিকার।

শুধু আইনগতভাবে নয় ধর্মীয় মূল্যবোধ ও মানবাধিকারের দিক থেকেও হোটেল শ্রমিকদের বোনাস ন্যায্য অধিকার। শ্রমিকরা তাদের আইনসঙ্গত অধিকার বাস্তবায়নের জন্য জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, উপ-শ্রম পরিচালক, শ্রম পরিদর্শক, চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি, ব্যবসায়ী সমিতি ও হোটেল মালিক সমিতিসহ সংশ্লিষ্টদের বার বার লিখিতভাবে আবেদন নিবেদন করেও  কোন প্রতিকার পাচ্ছেন না। উপরন্তু শ্রমিকদের ন্যায় সঙ্গত দাবিকে দমন করার জন্য মালিকরা হোটেল শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি মোঃ মোস্তফা কামালসহ নেতৃবৃন্দের নামে মিথ্যা মামলা দায়ের করে হয়রানি করে চলছেন। স্মারকলিপিতে সরকার ঘোষিত গেজেট অনুযায়ী ঈদুল আজহা ও দুর্গা পুজায় হোটেল শ্রমিকদের একমাসের মূল বেতনের সমপরিমান বোনাস, হোটেল সেক্টরে সরকার ঘোষিত নিন্মতম মজুরী ও শ্রম আইন কার্যকর এবং মৌলভীবাজার জেলা হোটেল শ্রমিক ইউনিয়ন রেজি: নং চট্ট: ২৩০৫ এর সভাপতি মোঃ মোস্তফা কামালসহ নেতৃবৃন্দের উপর থেকে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করার প্রেক্ষিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ জেলা প্রশাসকের হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়।

স্মারলিপির অনুলিপি  প্রশাসক, মৌলভীবাজার জেলা পরিষদ,  উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, মৌলভীবাজার সদর, পুলিশ সুপার, মৌলভীবাজার, মেয়র, মৌলভীবাজার পৌরসভা, উপ-শ্রম পরিচালক, শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়, শ্রীমঙ্গল, পরিদর্শক(শ্রম), দোকান ও প্রতিষ্ঠান সমূহের আঞ্চলিক দপ্তর, শ্রীমঙ্গল, সভাপতি, চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি, মৌলভীবাজার,  সভাপতি/সম্পাদক, মৌলভীবাজার হোটেল-রেস্টুরেন্ট মালিক সমিতি,  মৌলভীবাজার।


সম্পাদনা: News Desk, নিউজরুম এডিটর

আমারসিলেট২৪.কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Place for advertisement
Place for advertisement

সর্বশেষ সংবাদ


সর্বাধিক পঠিত

এডিটর: আনিছুল ইসলাম আশরাফী, এনিমেটরস্ বাংলা মিডিয়া গ্রুপ কর্তৃক প্রকাশিত
সম্পাদকীয় কার্যালয়: কলেজ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।
Email: news.amarsylhet24@gmail.com Mobile: 01772 968 710

Developed By : i-Tech Sreemangal
Email : itech.official@hotmail.com
Facebook : http://facebook.com/itech.ctc