ইউপি নির্বাচনে দলের মনোনীত প্রার্থীকে বিজয়ী করতে হবে:প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

0
62
ইউপি নির্বাচনে দলের মনোনীত প্রার্থীকে বিজয়ী করতে হবে:প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

রেজওয়ান করিম সাব্বির,জৈন্তাপুর (সিলেট) প্রতিনিধি:  প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ এমপি বলেন, আমি সব সময় কথায় এবং কাজে বিশ্বাসী। জনগণের আস্থা ও ভালবাসা নিয়েই আমি জননেত্রী শেখ হাসিনার প্রিয়পাত্র হয়ে আছি। প্রধানমন্ত্রীর জন্যই প্রতিটি কাজ দ্রুততার সাথে বাস্তবায়িত হচ্ছে এবং যার সুযোগ্য নেতৃত্বে করোনার মহামারিতে প্রায় ৫ হাজার কোটি টাকার ভ্যাকসিন বিভিন্ন দেশ হতে আনা হয়েছে।

নির্বাচনের সময় প্রার্থী মনোনয়নে অনেক ভূল হয়ে যায়, তবে দলের নীতিনির্ধারনী বোর্ড যাকে মনোনীত করবে তার হয়ে কাজ করতে হবে। মনে রাখতে হবে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন জাতীয় সংসদ নির্বাচনের উপর প্রভাব ফেলতে পারে। ইউপি নির্বাচনই বলে দেবে আগামীতে কারা ক্ষমতায় আসবে। বঙ্গবন্ধুর পরিবার ও জাতীয় ৪ নেতা দেশ ও দলের জন্য রক্ত দিয়েছেন, এজন্য বঙ্গবন্ধুর পরিবারের প্রতি সম্মান রেখে আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলের মনোনীত প্রার্থীকে বিজয়ী করতে হবে।

বাংলাদেশে অতীতে ন্যায় এখনো সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিরাজমান রয়েছে। জৈন্তাপুর উপজেলায়ও ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সম্প্রীতির বন্ধনে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করা সহ প্রতিটি মন্ডপের পুজারীদের কাছে প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা জানিয়ে দেওয়ার আহবান করেন। সোমবার (১১ অক্টোবর ২০২১) সকাল ১০টায় জৈন্তাপুর উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে শারদীয় দূর্গাপুজা উপলক্ষে জৈন্তাপুর উপজেলার সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সাথে এক শুভেচ্ছা বিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ জৈন্তাপুর উপজেলা শাখার সভাপতি নিপেন্দ্র কুমার দাস’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জৈন্তাপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল আহমদ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নুসরাত আজমেরী হক, সহকারী কমিশনার (ভূমি) ফারুক আহমেদ, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ বশির উদ্দিন, জৈন্তাপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি শাহেদ আহমদ, সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জয়মতি রানী। পুজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক দুলাল চন্দ্র দাস’র পরিচালনায় এতে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ হিন্দু বৈদ্য খৃষ্ঠান ঐক্য পরিষদ জৈন্তাপুর উপজেলা শাখার সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা যাধব বিশ্বাস, সাধারণ সম্পাদক সুলাল চৌধুরী, সাবেক সভাপতি ফনী ভূষণ দে, নিজপাট কালিবাড়ী পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি সুব্রত মোহন ধর, সাধারণ সম্পাদক পাপলু দে, নিবার দাস, প্রণদ কান্ত দেব, নগেন্দ্র নম, অদির চত্রুবর্তী, সৌমিক দেব প্রমুখ।

অপরদিকে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের শারদীয় দূর্গাপুজা উপলক্ষে জৈন্তাপুর উপজেলার সনাতন ধর্মাবলম্বী নেতৃবৃন্দের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় সভায় নির্ধারিত সময়ের পূর্ব হতে উপজেলা আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতারা হলরুমে আসন গ্রহন করে বসে আছেন, সাথে রয়েছেন পুজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দও। প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী সভাস্থলে এসে প্রধান অতিথির আসন গ্রহন করেন।

লোকজনের উপস্থিতি অধিক হওয়ায় সনাতন ধর্মাবলম্বী নেতৃবৃন্দ ও আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দের মধ্যে যখন আসন গ্রহন নিয়ে গাদাগাদি অবস্থা। তখন মাইক হাতে নিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি কামাল আহমদ। তিনি পুজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দ ব্যতিত আওয়ামীলীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দকে হলরুম ত্যাগ করার ঘোষণা দেন। ফলে নেতাকর্মীরা ক্ষিপ্ত হয়ে সভাস্থল ত্যাগ করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here