অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ডসিরিজের ফাইনাল আজ

    0
    16

    আমারসিলেট 24ডটকম , সেপ্টেম্বর  : সফরকারী অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ সিরিজের চতুর্থ ওয়ানডে ম্যাচটি শনিবার নাটকীয়ভাবে জিতে নিয়েছে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। ফলে সিরিজে এখন ১-১ সমতা বিরাজ করছে। সেজন্য পঞ্চম ও শেষ ওয়ানডেটি রূপ নিয়েছে ফাইনাল ম্যাচে। তাই সিরিজ জয়ের শেষ লড়াইয়ে আজ মাঠে নামছে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। সাউদাম্পটনে বাংলাদেশ সন্ধ্যা সাতটায় শুরু হবে খেলাটি। এশেজের পাঁচ টেস্ট ও টি২০ দুই ম্যাচ সিরিজের পর পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে মুখোমুখি হয় ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া।

    কিন্তু প্রথম ম্যাচেই বৃষ্টির কবলে পড়ে হোটেলে হাত পা গুটিয়ে বসে থাকতে হয় দু’দলের খেলোয়াড়দের। তবে পরের ম্যাচে মাঠের লড়াইয়ের নামা সৌভাগ্য হয় তাদের।সে লড়াইয়ে নিজেদের পারফরমেন্সের ঝলক দেখায় অস্ট্রেলিয়া। ৮৮ রানে প্রথম ওয়ানডে জিতে সিরিজে লিড নেয় তারা। কিন্তু তৃতীয় ওয়ানডেটিতে আবারো দাপট দেখায় বৃষ্টি। ফলে এ ম্যাচটিও পরিত্যক্ত হয়। আর বৃষ্টির এমন নাটকে অনেকটা বিরক্তও হয়ে যায় ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার খেলোয়াড়রা। ফলে বৃষ্টির চিন্তা মাথায় নিয়ে চতুর্থ ম্যাচ খেলতে নামে তারা। কিন্তু এবার আর তেজিভাব দেখাতে পারেনি বৃষ্টি। তবে অস্ট্রেলিয়াকে হতাশা উপহার দেয় ইংল্যান্ড। নাটকীয়ভাবে চতুর্থ ওয়ানডেটি ৩ উইকেটে জিতে নেয় ইয়োইন মরগানের দল।কার্ডিফে টস জিতে প্রথমে অস্ট্রেলিয়াকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় ইংল্যান্ড। তবে আগে ব্যাট করার সুযোগটাকে কাজে লাগাতে পারেনি অসি ব্যাটসম্যানরা।

    ইংল্যান্ড বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে ২২৭ রানেই অলআউট হয়ে যায় সফরকারীরা। অস্ট্রেলিয়াকে লড়াই করার মত এমন পুঁিজ এনে দিয়েছেন জর্জ বেইলি। ওয়ানডে ক্যারিয়ারের অষ্টম হাফ সেঞ্চুরি তুলে ৮৭ রানে থামেন বেইলি। তার ৯১ বলের ইনিংসে ৫টি চার ও ৩টি ছক্কার মার ছিল। এছাড়া ম্যাথু ওয়েডের ব্যাট থেকে আসে তৃতীয় সর্বোচ্চ ৩৬ রান। ইংল্যান্ডের পক্ষে ২টি করে উইকেট শিকার করেছেন স্টিভেন ফিন ও বয়েড র‌্যানকিন।

    জবাবে জয়ের জন্য ২২৮ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে মহাবিপদে পড়ে ইংল্যান্ড। ৮ রানের মধ্যে ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে স্বাগতিকরা। মরগানের দলকে মহাবিপদে ফেলতে মহাকীর্তি গড়েন অসিদের পেসার ক্লিন্ট ম্যাককে। ইনিংসের তৃতীয় ও নিজের দ্বিতীয় ওভারের প্রথম তিন বলে ইংল্যান্ডের ব্যাটসম্যান কেভিন পিটারসেন, জনাথন ট্রট ও জো রুটকে আউট করে ওয়ানডে ক্রিকেটে নিজের প্রথম ও অস্ট্রেলিয়ার হয়ে পঞ্চম হ্যাটট্রিক করেন ম্যাককে।আর ওয়ানডে ক্রিকেটে এটি ৩৩তম হ্যাটট্রিক।
    ম্যাককের এমন কীর্তি গড়ার পর ঘুঁড়ে দাঁড়ানোর চেষ্টা করে ইংল্যান্ড। সেখানে দারুন সফলও হয়েছে তারা। মাইকেল কারবেরি ও অধিনায়ক মরগানের কল্যানে খেলায় ফেরে ইংলিশরা। দু’জনই তুলে নেন হাফ-সেঞ্চুরি। তবে কারবেরি ৬৩ ও মরগান ৫৩ রানে ফিরে গেলে ম্যাচ হারের শংকায় পড়ে ইংল্যান্ড। কিন্তু শেষদিকে ৬৫ রানের নান্দনিক এক অনবদ্য ইনিংস খেলে ৩ বল আগেই দলের জয় নিশ্চিত করে মাঠ ছাড়েন জস বাটলার। ফলে সমতা আসে সিরিজে।
    তাই পঞ্চম ও শেষ ওয়ানডেটি রুপ নিয়েছে ফাইনালে। আর দু’দলের প্রধান লক্ষ্য হল- সিরিজ জয়। ইংল্যান্ডের অধিনায়ক ইয়োইন মরগান বলেন, এমন জয়ে আমাদের আত্মবিশ্বাসটা অনেক বেড়ে গেছে। ফলে সিরিজ জয়ের দারুন একটি সুযোগ তৈরি হয়েছে আমাদের। আর যদি শেষ ম্যাচটি আমরা জিততে পারি তবে দারুন সব সাফল্য নিয়ে এবারের মৌসুম শেষ করতে পারবো আমরা। তাই সিরিজ জয়ই প্রধান লক্ষ্য আমাদের।
    মরগানের মত একই সুরে কথা বললেন অসি অধিনায়ক মাইকেল ক্লার্কও, ‘এক ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ জয়ের সুর্বন সুযোগ হাতছাড়া করলাম আমরা। ফলে শেষ ম্যাচে অগ্নিপরীক্ষায় নামতে হবে আমাদের। তাই এ ম্যাচে নিজেদের সর্বোচ্চ পারফরমেন্স দিয়ে সিরিজ জিততে চাই আমরা।’

    LEAVE A REPLY

    Please enter your comment!
    Please enter your name here